আপনার অফিসে কী করেন, কী করবেন না

আপনার অফিসে কী করেন, কী করবেন না

ভল্ট ডটকম এর একটি জরিপ মতে, ৫৩ শতাংশ কর্মজীবি কমপক্ষে  তাদের একজন বিবাহিত সহকর্মীকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়ার মাধ্যমে থাপ্পর খেয়েছেন। সত্যি কথা বলতে গেলে বিবাহিত পুরুষ বা মহিলার সঙ্গে প্রেমের স্বপ্ন দেখাটা নাটক সিনেমাতেই মানায়। অফিসে তা প্রয়োগ করতে যাবেন না। তাহলে আপনি অফিসে কার সাথে কীভাবে কথা বলবেন, কার সাথে কী বলবেন না, আগেভাগেই জেনে রাখুন।

হাসি দিয়েই শুরু করুন : সকালে অফিসে ঢুকে বা কাজের শুরুর আগে সহকর্মীদের   প্রতি হালকা একটি মিষ্টি হাসি বা  হালকা কিছু কথাবার্তা দিয়ে আপনার দিনটি শুরু করতে পারেন। এই সামান্য কাজটুকু আপনার কর্মক্ষেত্রকে করে তুলবে প্রাণচাঞ্চল্য।

অন্যের মতামতকে প্রাধান্য দিন : অফিসে কোনো গুরুত্বপূর্ণ  সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষেত্রে সবার  মতামত নিন। একতরফা সিদ্ধান্ত না নিয়ে সহকর্মীদের সঙ্গে পরামর্শ করে সিদ্ধান্ত নেয়া উচিত। এতে করে সবার মধ্যে দলগতভাবে কাজ করার মানসিকতা তৈরি হবে।

মেপে কথা বলতে হবে : নিজের অধিকার ক্ষুণ্ণ হলে বা প্রয়োজনীয় বিষয়ে কথা তো বলতেই হবে কিন্তু অপ্রয়োজনীয় বা বিতর্কিত কথা অফিসে বলবেন না। বিশেষ করে অফিস সম্পর্কিত কথা বলার সময় খুবই সাবধান থাকবেন। অফিসের অন্য কোনো সহকর্মী এবং কোনো সিদ্ধান্ত সম্পর্কে এমন কিছু বলবেন না যাতে কর্মক্ষেত্রে আপনার ইমেজ খারাপ হয়। সবচাইতে বড় কথা, একজনকে অপরের কথা বলার মতো ভুল কাজ করতে যাবেন না। এমন কি সহকর্মী কথা তুললে তার সঙ্গেও তাল মেলাতে যাবেন না।

অন্যের কাজে ভুলধরা বাদ দিন : কাজ করতে গেলে সামান্য ভুলত্রুটি হতেই পারে। এর জন্য সহকর্মীকে উপহাস না করে, সুন্দর ভাষায় তাকে বিষয়টি বুঝিয়ে দিতে হবে। আর সহকর্মীর কাজে ভুল না খুঁজে সে সময়টা নিজের কাজ মন দিলে আপনার ক্যারিয়ারের জন্যই ভালো হবে।

পরনিন্দা বা পরচর্চা করবেন না : অফিসে পরনিন্দা বা পরচর্চা সম্পূর্ণ পরিহার করতে হবে। মনে রাখতে হবে অফিস কাজের জায়গা পরনিন্দা করার জায়গা না।সহকর্মীর পেছনে তার বিরুদ্ধে কথা বললে আপনারই কাজের পরিবেশ নষ্ট হতে পারে। তাই এ ধরনের কথা-বার্তা এড়িয়ে চলুন।

মানিয়ে চলুন : সহকর্মীদের সঙ্গে মানিয়ে চলার চেষ্টা করুন। মনে রাখবেন, একই জায়গার সব মানুষই কখনো ভালো হয় না। তাই কারো খারাপ আচরণে মন খারাপ করবেন না। নিজের সম্মান বজায় রাখার চেষ্টা করুন।

খোলামেলা আলোচনা করুন : কোনো সহকর্মীর আচরণে আপনি যদি কষ্ট পেয়ে থাকেন তাহলে তার সঙ্গে উচ্চস্বরে কথা না বলে শান্তভাবে তাকে বুঝিয়ে বলুন। খোলামেলা আলোচনায় অনেক সময় কঠিন সমস্যারও সমাধান করা সম্ভব।

কাজের প্রশংসা করুন : সহকর্মী ভালো কাজ করলে তার কাজের প্রশংসা করুন। প্রশংসা শুনতে সবাই পছন্দ করে। আর এর ফলে সহকর্মীর সঙ্গে আপনার সম্পর্ক আরো ভালো হবে এবং আগামীতে আপনার কাজেও অনেকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিবে।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ