আমেরিকার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান উ. কোরিয়ার!

আমেরিকার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান উ. কোরিয়ার!

উত্তর কোরিয়া তার পরমাণু নিরস্ত্রীকরণের বিষয়ে আমেরিকার পক্ষ থেকে যেসব প্রস্তাব দেয়া হয়েছে তা প্রত্যাখ্যান করেছে দেশটি। আমেরিকার টেলিভিশন চ্যানেল সিএনএন উত্তর কোরিয়ার কয়েকজন শীর্ষস্থানীয় কূটনীতিকের বরাত দিয়ে বলেছে, পিয়ংইয়ং আমেরিকার প্রস্তাবগুলোকে একজন গ্যাংস্টারের নির্দেশ হিসেবে বিবেচনা করছে।

সিএনএন জানিয়েছে, উত্তর কোরিয়াকে তার সব পরমাণু অস্ত্র পুরোপুরি ধ্বংস করার প্রক্রিয়া শুরু করার পাশাপাশি এ বিষয়ে একটি নির্দিষ্ট সময়সীমাও বেঁধে দিতে হবে বলে মার্কিন প্রশাসনের পক্ষ থেকে বারবার চাপ প্রয়োগ করা হচ্ছে।

সংবাদ মাধ্যমটি তার প্রতিবেদনে আরও জানিয়েছে, গত জুনে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন সিঙ্গাপুরে এক নজিরবিহীন বৈঠকে কোরীয় উপদ্বীপকে পরমাণু অস্ত্রমুক্ত করার বিষয়ে যে ‘অস্পষ্ট প্রতিশ্রুতি’ দেন তা এখন কূটনৈতিক ব্যর্থতায় রূপ নিচ্ছে। কারণ তড়িঘড়ি করে তখন যে সমঝোতা হয়েছিল সেখানে কোরিয় উপদ্বীপকে পরমাণু নিরস্ত্রীকরণের ব্যাপারে কোনো সুনির্দিষ্ট সময় সীমার কথা উল্লেখ ছিল না। এছাড়া, পিয়ংইয়ং কখনোই একথা ঘোষণা করেনি যে, দেশটি এককভাবে তার সব পরমাণু অস্ত্র ধ্বংস করবে।

ওয়াশিংটন দাবি করছে,  উত্তর কোরিয়ার পরমাণু অস্ত্র কর্মসূচি ও ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে দেশটির বিরুদ্ধে জাতিসংঘ এবং আমেরিকার পক্ষ থেকে আরোপিত কঠোর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের আগে দেশটিকে তার সব পরমাণু অস্ত্র ধ্বংস করতে হবে।

এদিকে উত্তর কোরিয়ার পক্ষ থেকেও স্পষ্ট জানিয়ে দেয়া হয়েছে যে, নিজের পরমাণু অস্ত্র ধ্বংস করার আগে সদিচ্ছার প্রমাণ দিতে ওয়াশিংটনকে অবশ্যই আগে তার আরোপিত নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে হবে।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*

সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট