গুজবে বিভ্রান্ত হবেন না: ওবায়দুল কাদের

গুজবে বিভ্রান্ত হবেন না: ওবায়দুল কাদের

দেশে লবণ ও চালের পর্যাপ্ত  মজুদ রয়েছে বলে জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, লবণ ও চাল নিয়ে আজ গুজব সৃষ্টি করা হচ্ছে। এসব গুজবে বিভ্রান্ত হবেন না।

তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, যারাই এ ষড়যন্ত্র করছে তাদের কারও রেহাই নেই। তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।

মঙ্গলবার রাতে আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন।

তিনি বলেন, পেঁয়াজের পর লবণ নিয়ে দেশে পরিকল্পিতভাবে গুজব ছড়ানো হচ্ছে। গুজব সৃষ্টি করে লবণের দাম বৃদ্ধির ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। বাজারে অরাজকতা অস্থিরতা সৃষ্টির অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, এখান থেকে কেউ কেউ রাজনৈতিক ফায়দা তোলার অপচেষ্টায় লিপ্ত। তারা এর মধ্যে আওয়াজ তুলেছে তারা আগাম নির্বাচন চায়।

তিনি বলেন, আগাম নির্বাচন চাওয়ার অর্থ হচ্ছে এটি তাদের মামা বাড়ির আবদার করার মতোই বক্তব্য। একটি বিরোধী দল এসব গুজব সৃষ্টি করছে, গুজবে উস্কানি দিচ্ছে এটি আজ পরিষ্কার। এ মহলটি দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে চায়।

দেশে পর্যাপ্ত চালের মজুদ রয়েছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের জানান, দেশে পর্যাপ্ত চালের মজুদ রয়েছে। এর মধ্যে আগামীকাল থেকে সারা দেশে সরকারিভাবে নতুন ধান ক্রয়ের কার্যক্রম শুরু হচ্ছে। কোথাও কোনো সংকট নেই।

নতুন সড়ক পরিবহন আইন কার্যকরের প্রতিবাদে ট্রাক কাভার্ড ভ্যান মালিক সমিতির কর্মবিরতি প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ‘তারা আর কিছুক্ষণের মধ্যে আমাদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনায় বসবেন। আমি আশা করব তাদের সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে।’

এসময় পুলিশ সদস্যেদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, শাস্তি দেওয়ার ক্ষেত্র আপনার সহনশীল হবেন। আমরা কাউকে শাস্তি দিতে চাই না, আইনের আওতায় আনতে চাই। এটা সকলের জন্য জরুরি।

এসময় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আবদুল মতিন খসরু, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক,  আবদুর রহমান, প্রচার সম্পাদক ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমেদ হোসেন, বিএম মোজাম্মেল হক, আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম,  দপ্তর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ,  কৃষি ও সমবায় সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক আফজাল হোসেন, বন ও পরিবেশন বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, উপ-দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া প্রমুখ।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট