গ্রুপসেরা হয়ে সেমিতে বাংলাদেশের মেয়েরা

গ্রুপসেরা হয়ে সেমিতে বাংলাদেশের মেয়েরা

অনূর্ধ্ব-১৮ সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের গ্রুপ পর্ব শেষে অপরাজিত থাকল বাংলাদেশ। পাকিস্তানকে উড়িয়ে দিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে রেখেছিল তারা। মঙ্গলবার ভুটানের চাংলিমিথাং স্টেডিয়ামে নেপালকে ২-১ গোলে হারাল তারা। এতে ‘বি’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে খেলবে মারিয়া-কৃষ্ণারা।

আগামী শুক্রবার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ‘এ’ গ্রুপের রানার্সআপ স্বাগতিক ভুটানের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। তার আগে ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন ভারত খেলবে ‘বি’ গ্রুপের রানার্সআপ নেপালকে।

ভুটানের চাংলিমিথাং স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা সাতটায় শুরু হওয়া ম্যাচের শুরু থেকেই নেপালকে চেপে ধরে বাংলাদেশের মেয়েরা। সুফল হিসেবে ১৬তম মিনিটে গোলাম রব্বানী ছোটনের শিষ্যরা এগিয়ে যায় সিরাত জাহান স্বপ্নার গোলে। সতীর্থের লম্বা করে বাড়ানো বল গায়ের সঙ্গে সেঁটে থাকা এক ডিফেন্ডারকে গতি দিয়ে পেছনে ফেলে ধরে নিখুঁত টোকায় জালে জড়িয়ে আনন্দে মাতেন তিনি। এর আগের ম্যাচে স্বপ্না করেছিলেন ৭ গোল।

এদিকে ম্যাচের ৩২তম মিনিটে গোলরক্ষক রুপনা চাকমা গোল কিক নেওয়ার পর অফসাইডের ফাঁদ ভেঙে বলের নিয়ন্ত্রণে নেন কৃষ্ণা। এরপর কাছের পোস্ট দিয়ে জাল খুঁজে নেন তিনি। চলতি টুর্নামেন্টে এটি তার দ্বিতীয় গোল।

বিরতির আগে নেপালের জালে বল জড়ানোর সহজ সুযোগ পেয়েছিলেন শামসুন্নাহার সিনিয়র। কিন্তু স্পষ্ট কিক থেকে গোল করতে পারেননি তারকা এ ফরোয়ার্ড। ৪১তম মিনিটে ডি-বক্সে কৃষ্ণা ফাউলের শিকার হলে পেনাল্টির বাঁশি বাজান কিন্তু পোস্টের বাইরে মেরে বল মেরে বসেন শামসুন্নাহার।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকে আবারো আক্রমণাত্বক ফুটবল খেলে বাংলাদেশের মেয়েরা। বেশ কয়েকবার প্রতিপক্ষের জালে বল জড়ানোর সহজ সুযোগও পেয়েছিলেন তারা। কিন্তু স্বপ্না-কৃষ্ণারা এ অর্ধে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে বল পৌঁছাতে পারেননি। এ সুযোগে যোগ করা সময়ে নেপালের রাশমি কুমারী গোল করে ব্যবধান কমিয়ে দেন। কিন্তু তাতে কোন ক্ষতি হয়নি জুনিয়র টাইগ্রেসদের। ঠিকই প্রতিপক্ষকে ২-১ গোলে হারিয়ে ‘বি’ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার আনন্দে মাঠে ছাড়েন গোলাম রব্বানী ছোটনের শিষ্যরা।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট