ঘড়ির কাঁটা যে কারণে ডান দিকেই ঘোরে 

ঘড়ির কাঁটা যে কারণে ডান দিকেই ঘোরে 

সময় চলে যায়। কেটে যায় মাস, দিন, বছর। হাতে বা দেওয়ালে টাঙিয়ে রাখা ঘড়িটার দিকে তাকান। দেখবেন, কেমন করে একটু একটু করে ঘুরে যাচ্ছে কাঁটা। আর কেটে যাচ্ছে জীবন। এই ঘড়ির কাঁটা সব সময় ডানদিকে ঘোরে। সোনার ঘড়ি হোক বা ফুটপাথের প্লাস্টিকের ঘড়ি, নিয়ম একই।

কিন্তু কেন ঘড়ির কাঁটা ডানদিকে ঘোরে। বামদিকেও তো ঘুরতে পারত। এর কি কোনও নির্দিষ্ট কারণ আছে কি নেই,  মনের মধ্যে কখনও কি উঁকি দিয়েছে এই প্রশ্ন। আসুন জেনে নেওয়া যাক কেন সব ঘড়িতেই এমনটা হয়।

আসলে ঘড়ির আবিষ্কার হয়েছিল ইউরোপে। তার আগে মানুষ সময় দেখত সূর্যঘড়িতে। আর সেই সূর্যঘড়ির প্রভাবেই ঘড়ির কাঁটা ঘুরতে থাকল ডানদিকে। ব্যাপারটা খুলে বলা যাক।

ইউরোপ পৃথিবীর উত্তর গোলার্ধে অবস্থিত। তাই সূর্য হেলে থাকে দক্ষিণ আকাশে। সেই কারণেই সূর্যঘড়িতে যে দণ্ড থাকত, তার তার ছায়া বাঁ থেকে ডানদিকেই সরে সরে যেত। সেই হিসেবেই হতো সময়ের পরিমাপ। এই কারণেই ঘড়ির কাঁটাও সেই ভাবেই সরতে লাগল। বাম থেকে ডানদিকে। যাকে বলে ক্লকওয়াইজ।

সূর্যঘড়ি শত যুগ হল পরিত্যক্ত হয়েছে। অথচ তার ছোঁয়া যেন আজও নিয়ন্ত্রণ করে চলে ঘড়ির চলনকে। ঠিক এই ভাবেই ইতিহাসকে ছুঁয়ে সামনের দিকে এগিয়ে চলে সময়। এটাই বোধহয় নিয়ম।

 

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট