ছাত্রদের পাসের হার আরও বাড়াতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

ছাত্রদের পাসের হার আরও বাড়াতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আমাদের ছাত্রীদের পাসের হার একটু বেশি। জেন্ডার সমস্যা বিশ্বব্যাপী প্রচলিত। এখন আমাদের বলতে হয়, আমাদের ছাত্রদের পাসের হার আরও বাড়াতে হবে, যেন জেন্ডার সমতা এসে যায়।

আজ বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় গণভবনে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশ ও ফলের পরিসংখ্যান হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। এর আগে প্রধানমন্ত্রীর হাতে প্রতিটি বোর্ডের ফলাফল তুলে দেন শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানরা।

চলতি বছরের উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের ফল নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, এবারের ফল যথেষ্ট গ্রহণযোগ্য ও ভালো।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমি মনে করি শিক্ষার্থীরা সঠিকভাবে মনোযোগ দিলে তাদের ফল আরও ভালো হবে।’

শেখ হাসিনা বলেন, তিনি বিশ্বাস করেন যে উন্নত ও সমৃদ্ধ জাতি বিনির্মাণে এবং ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত দেশ গড়তে শিক্ষা হলো সবচেয়ে প্রয়োজনীয় উপাদান। একটি শিক্ষিত জাতি একটি উন্নত, সমৃদ্ধ, দারিদ্র্য ও ক্ষুধামুক্ত দেশ গড়ে তুলতে পারে।

পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়া সকল শিক্ষার্থীকে অভিনন্দন এবং অনুত্তীর্ণদের ভেঙ্গে না পড়ার আহ্বান জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘তোমরাও পরবর্তীতে ভালো করার সুযোগ পাবে।’

এর আগে  বুধবার সকাল ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ফলাফলের অনুলিপি আনুষ্ঠানিকভাবে হস্তান্তর করেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। এ সময় দেশের সব শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানরা উপস্থিত ছিলেন।

এবার পরীক্ষা শেষের ৫৫ দিনের মাথায় ফল প্রকাশ করা হলো। আটটি সাধারণ, মাদ্রাসা ও কারিগরিসহ ১০টি শিক্ষাবোর্ড থেকে এ বছর ১৩ লাখ ৩৬ হাজার ৬২৯ শিক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে পাস করেছে ৯ লাখ ৮৮ হাজার ১৭২ জন। ৮টি সাধারণ বোর্ডে পাসের পার ৭১.৮৫ এবং জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪১ হাজার ৮০৭ জন। মাদ্রাসা বোর্ডে পাসের হার ৮৮.৫৬ শতাংশ এবং জিপিএ-৫ পেয়েছে দুই হাজার ২৪৩ জন। আর কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৮২.৬২ শতাংশ এবং জিপিএ ৫ পেয়েছে তিন হাজার ২৩৬ জন।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট