ট্রাম্পের যুদ্ধ-ক্ষমতা কমাবে সিনেট

ট্রাম্পের যুদ্ধ-ক্ষমতা কমাবে সিনেট

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের যুদ্ধ ঘোষণার কর্তৃত্ব কমানোর উদ্যোগ নিয়েছে দেশটির সিনেট। এজন্য একদল সিনেটর ‘অথারাইজেশন ফর দ্যা মিলিটারি ফোর্স’ বা এইউএমএফ নামের একটি বিল তুলেছেন যা পাস হলে প্রেসিডেন্টের যুদ্ধ ঘোষণার ক্ষমতায় সীমিত হয়ে পড়বে।

বিলটি তোলার পেছনে প্রধান ভূমিকায় রয়েছেন ক্ষমতাসীন রিপাবলিকান দলের সিনেটর ও পররাষ্ট্র সম্পর্ক বিষিয়ক কমিটির প্রধান বব ক্রোকার এবং বিরোধী ডেমোক্র্যাট দলের সিনেটর টিম কাইনে। তারা জানিয়েছেন, নতুন এ বিলে প্রেসিডেন্টকে আল-কায়েদা, তালেবান ও দায়েশের মতো উগ্রবাদী সংগঠনের বিরুদ্ধে লড়াই করার ক্ষমতা দেয়া হবে কিন্তু সিরিয়ার মতো কোনো দেশের বিরুদ্ধে সামরিক হামলা করতে হলে প্রেসিডেন্টকে অবশ্যই প্রথমে কংগ্রেসকে জানাতে হবে এবং সম্ভাব্য সামরিক হামলার জরুরি কিনা তা ঠিক করার জন্য আইনপ্রণেতাদের দুই মাসের সময় দিতে হবে।

এর আগে ২০০১ সালে মার্কিন কংগ্রেসে আমেরিকার বর্তমান যুদ্ধ-আইন পাস হয়েছিল। ওই আইনের পর কথিত সন্ত্রাসবাদ-বিরোধী যুদ্ধ শুরু হয় যা এখনো চলছে। পরের বছর ইরাক যুদ্ধের জন্য আরেকটি এইউএমএফ বিল পাস করা হয় যাকে ব্যবহার করে মার্কিণ প্রেসিডেন্ট বৃহত্তর সংঘাতকে আইনসিদ্ধ করছেন।

নতুন আইন পুরনো আইনগুলোর স্থলাভিষিক্ত হবে এবং নতুন বিলে প্রতি চার বছর পর যুদ্ধ আইন পর্যালোচনার বিধান রাখা হবে। যদি কংগ্রেস নতুন বিল পাস করতে ব্যর্থ হয় তাহলে পুরনো আইনই চলবে। বব ক্রোকার জানান, আগামী সপ্তাহের মধ্যে নতুন বিল নিয়ে পররাষ্ট্র সম্পর্ক বিষয়ক কমিটিতে আলোচনা হবে।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট