পাকিস্তানে তাপদাহে ৬৫ জনের মৃত্যু

পাকিস্তানে তাপদাহে ৬৫ জনের মৃত্যু

পাকিস্তানের করাচিতে তীব্র তাপদাহে হিটস্ট্রোকে অন্তত ৬৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (২১ মে) এই তথ্য জানিয়েছে দেশটির দাতব্য সংস্থা এধি ফাউন্ডেশন। খবর- ডনের।

সংস্থাটির প্রধান ফয়সাল এডি জানান, করাচির কোরাঙ্গি ও সোহরাম গোথ এলাকায় গত তিনদিনে ১১৪টি লাশ আনা হয়েছে। এদের মধ্যে ৬৫ জনের মৃত্যু হয়েছে হিটস্ট্রোকে। নিহত বেশির ভাগ মানুষ লান্ধি ও কোরাঙ্গি এলাকার।

ফয়সাল আরও জানান, হিটস্ট্রোকে নিহতদের বেশিরভাগেরই মৃত্যু হয়েছে তাদের বাড়িতে। ৬ থেকে ৭৮ বছরের মানুষ রয়েছেন নিহতদের মধ্যে। এসব মানুষ সঠিক সময় চিকিৎসা পাননি। ফলে তাদের মৃত্যু হয়েছে।

অবশ্য সিন্ধুর স্বাস্থ সচিব ড. ফজলুল্লাহ পেচুহো এধি ফাউন্ডেশনের এই দাবিকে অস্বীকার করেছেন। তিনি বলেন, শুধু চিকিৎসক ও হাসপাতাল মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে সঠিক তথ্য দিতে পারে। এক্ষেত্রে করাচিতে হিটস্ট্রোকে মৃত্যুর বিষয়টি আমি অস্বীকার করছি।

ড. ফজলুল্লাহ জানান, গত তিনদিনে করাচির কোনও হাসপাতালে হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত কোনও রোগী ভর্তি হয়নি।

গত কয়েকদিন ধরে করাচির তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস রয়েছে। আগামী ২৩ মে পর্যন্ত এই অবস্থা বজায় থাকবে বলে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে। রবিবার পাকিস্তানের আবহাওয়া অধিদপ্তর করাচিতে তীব্র গরমের জন্য সতর্কতা জারি করে। ওই দিন বিকাল ৩টায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে।

করাচির মেয়র ওয়াসিম আখতার বাসিন্দাদের হিটস্ট্রোক এড়াতে দিনের বেলা ঘরে ভেতরে থাকার আহ্বান জানিয়েছেন।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট