বিক্ষোভের মুখে পদত্যাগ করলেন বলিভিয়ার প্রেসিডেন্ট

বিক্ষোভের মুখে পদত্যাগ করলেন বলিভিয়ার প্রেসিডেন্ট

ভোট কারচুপির অভিযোগে গণবিক্ষোভের মুখে পদত্যাগ করেছেন বলিভিয়ার প্রেসিডেন্ট ইভো মোরালেস।

গত মাসে তার বিতর্কিত পুনর্নির্বাচনের বিরুদ্ধে শুরু হওয়া বিক্ষোভের মুখে শেষ পর্যন্ত পদত্যাগ করতে হলো তাকে।

বিবিসি জানায়, ২০ অক্টোবরের নির্বাচনে ‘সুস্পষ্ট কারচুপি’র প্রমাণ পাওয়ায় আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষকরা রবিবার নির্বাচনের ফলাফল বাতিল করার আহ্বান জানায়।

বলিভিয়ার নির্বাচন কর্তৃপক্ষ ঢেলে সাজানোর পর মোরালেস পর্যবেক্ষকদের এই সিদ্ধান্তের সঙ্গে একমত হন। একই সঙ্গে নতুন নির্বাচন আয়োজন করার ঘোষণা দেন।

তবে রাজনীতিবিদ, পুলিশ এবং সেনাবাহিনী ইভো মোরালেসকে নির্বাচন থেকেও সরে দাঁড়ানোর আহ্বান জানিয়েছে।

এ সপ্তাহের শুরুতে তার সমর্থকদের অনেকের ওপর হামলা হয়েছে এবং তাদের ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে।

টেলিভিশনে দেওয়া এক ভাষণে মোরালেস বলেন, তিনি প্রেসিডেন্টের পদ থেকে পদত্যাগ করবেন। একই সঙ্গে হামলা ও ভাঙচুর বন্ধ করতে বিক্ষোভকারীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

ভাইস প্রেসিডেন্ট আলভারো গার্সিয়া লিনেরা এবং সিনেট প্রেসিডেন্ট আদ্রিয়ানা সালভাতিয়েরা ইতোমধ্যে পদত্যাগ করেছেন।

এই সিদ্ধান্তের পর বিক্ষোভকারীরা পথে নেমে আসে এবং আনন্দ মিছিল করে।

নির্বাচনের রাতে কোনো ব্যাখ্যা ছাড়াই ২৪ ঘণ্টার জন্য ভোট গণনা বন্ধ রাখার পর প্রথম উত্তেজনা তৈরি হয়। পরে ইভো মোরালেসকে বিজয়ী ঘোষণা করা হলে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে।

সহিংস বিক্ষোভে কমপক্ষে তিনজন প্রাণ হারান। পরবর্তীতে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে যোগ দেন কয়েকজন পুলিশ সদস্যও।

সেনাপ্রধান জেনারেল উইলিয়ামস কালিমানও প্রেসিডেন্টকে পদত্যাগ করার আহ্বান জানান। একই সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের ওপর কোনো সশস্ত্র গোষ্ঠী হামলা করলে তাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেবেন বলেও হুঁশিয়ারি দেয় সেনাবাহিনী।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট