বিজ্ঞানের নয়া আবিষ্কারে চোখের পলকে অদৃশ্য হবে মানব শরীর!

বিজ্ঞানের নয়া আবিষ্কারে চোখের পলকে অদৃশ্য হবে মানব শরীর!

ইনফ্রারেড নাইট ভিশন টুল থেকে মানুষকে অদৃশ্য করতে নতুন উপাদান বানিয়ে ফেলল ইউনিভার্সিটি অফ ক্যালিফোর্নিয়া, আরভাইন-এর একদল গবেষক। কল্পনার ডায়নোসর এবং স্কুইডের অদৃশ্য হওয়ার ক্ষমতার ওপর ভিত্তি করেই নতুন উপাদানটি প্রস্তুত করেছেন গবেষকদের এই দল। নতুন এই আবিস্কারের কথা প্রকাশ করা হয়েছে সায়েন্স জার্নালে। যদিও সত্যিই এই আবিষ্কার কাজের হয় তাহলে আগামিদিনে সেনা এবং বিভিন্ন পরিকাঠামো রক্ষা করতে এই উপাদান ব্যবহার করা যেতে পারে বলে জানাচ্ছেন গবেষকরা।

পাতলা এই উপাদান লম্বা করা হলে বা বৈদ্যুতিকভাবে ট্রিগার করা হলে এক সেকেন্ডের মধ্যে এটি তাপ প্রতিফলনের ধরন পরিবর্তন এবং এর উপরিভাগ মসৃন বা অমসৃন করতে পারে। গবেষকদের মধ্যে অন্যতম অ্যালন গোরোডেস্কি জানিয়েছেন, “মূলত, আমরা একটি নরম উপাদান তৈরি করেছি, যা স্কুইডের চামড়া যেভাবে আলোর প্রতিফলন করে একইভাবে তাপ প্রতিফলিত করতে পারে। এটি অমসৃন এবং অনুজ্জল অবস্থা থেকে মসৃন এবং চকচকে রুপ ধারণ করতে পারে, যেভাবে এটি তাপের প্রতিফলন ঘটায়।”

স্যান্ডুইচড অ্যালুমিনিয়াম, প্লাস্টিক এবং আঠালো টেপ দিয়ে উপাদানটি বানানো হয়েছে। একে ম্যানুয়ালি টানা হলে বা ভোল্টেজ দেওয়া হলে অমসৃণ ধূসর রঙ থেকে চকচকে রূপ ধারণ করে। অন্যতম এক গবেষক চেংগাই শু জানিয়েছেন, “এটি কঠিন ছিল, বিশেষ করে প্রথম পর্যায়ে যখন আমরা শিখছিলাম আঠালো উপাদান কীভাবে কাজ করে।” নতুন এই উপাদানের সম্ভাব্য ব্যবহার নিয়ে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, সেনা-জওয়াদের আরও ভালো ছদ্মবেশ এবং মহাকাশযান, স্টোরেজ কন্টেইনার সহ একাধিক কাজে এটি ব্যবহার করা যেতে পারে। তবে এক্ষেত্রে আরও সময় প্রয়োজন বলে জানাচ্ছেন গবেষকরা।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট