বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফটে ৩৯৩ ক্রিকেটার

বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফটে ৩৯৩ ক্রিকেটার

নুতন মডেলের বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) অংশগ্রহনকারী ৭ দলে হেড কোচের দায়িত্ব পালন করবেন ৭ বিদেশি। ফ্রাঞ্চাইজি মডেল বাদ দিয়ে বিগ ব্যাশের আদলে বিপিএল পরিচালনায় দলগুলোর হেড কোচ পদে বিদেশিদের গুরুত্ব দেয়ায় প্রশ্ন উঠেছে।

তবে  বিসিবি’র এই সিদ্ধান্তে ব্যাপক সাড়া পড়েছে। বাংলাদেশ দলের কোচ হতে আগ্রহী বিদেশিদের সাড়া তেমন একটা না পড়লেও আসন্ন বিপিএলে কোচ হতে ৩৮ জন বিদেশি আবেদন করেছেন !

বৃহস্পতিবার এমন তথ্যই দিয়েছেন বিসিবি সভাপতি-‘আমাদের মূল কাজ হচ্ছে সাপোর্ট স্টাফ চূড়ান্ত করা। এর পাশাপাশি প্রত্যেকটি দলের সঙ্গে আমরা একজন করে বোর্ড পরিচালক নিয়োগ দেবো। ইতিমধ্যে ৩৮ জন বিদেশি কোচ বিপিএলে থাকতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। স্থানীয়দের কোচিং না করানোর কারণ তো আমি দেখি না। আমার ধারণা স্থানীয় কোচও থাকবে। ৩৮ বিদেশি কোচ তো আর রাখা যাবে না। দল তো মাত্র সাতটি। সাতজন কোচ কারা হবে- এটা স্পন্সর ও নির্ধারিত পরিচালকরা ঠিক করবে।’

নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বিপিএল বলে, প্রতিটি দলের জন্য সাপোর্টিং স্টাফ নিযুক্ত করতেও বিশেষ ভুমিকা নিতে হচ্ছে বিসিবিকে। এমনটই জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি-‌‘কোচ ছাড়াও কিছু সাপোর্ট স্টাফ- যেমন ফিজিও, ট্রেনার, কম্পিউটার এনালিস্ট। আগামী দুই দিনের মধ্যে সবকিছু চূড়ান্ত হয়ে যাবে।’

বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফটের দিনক্ষনও ঠিক করে রেখেছে বিসিবি। আগামী ১২ নভেম্বর বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফট অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা। পরিচিত বিদেশি ক্রিকেটারদের দেখা যাবে আসন্ন বিপিএলে, এমনটাই জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি। ইতোমধ্যে ৩৯৩ জন ক্রিকেটারকে প্লেয়ার্স ড্রাফটে রাখা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি- ‘৩৯৩ ক্রিকেটার বিপিএলে তালিকাভুক্ত হয়েছে। সাধারণত এর আগে যে সব ক্রিকেটারকে বিপিএলে দেখা গেছে, সবাই আছে এই তালিকায়। আমাদের জন্য অন্তত ভালো একটি খবর। আমাদের কাছে মনে হয়েছে ১২ নভেম্বর প্লেয়ার ড্রাফটের জন্য ঠিক আছে। তার আগে ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজটাও শেষ হয়ে যাবে। আশা করি ১২ (নভেম্বর) তারিখেই আমরা প্লেয়ার ড্রাফট করতে পারব।’

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট