বিয়ে করলেন রেসলিং-হলিউড কাঁপানো তারকা ‘দ্য রক’

বিয়ে করলেন রেসলিং-হলিউড কাঁপানো তারকা ‘দ্য রক’

আবারও বিয়ে করেছেন ‘দ্য রক’ খ্যাত রেসলিং তারকা ডোয়াইন জনসন। তার ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে তিনি বলেছেন, ‘আই ডু।’ অর্থাৎ তিনি আবারও বিয়ে করেছেন। পাত্রী ৩৪ বছর বয়সী গায়িকা, গীতিকার ও সংগীত প্রযোজক লরেন হাসিন। বিয়ের পরে তোলা দুটি ছবি দিয়েছেন ডোয়াইন জনসন। ডোয়াইন আর লরেন বিয়ের ছবি আপলোড করে লিখেছেন, ‘উই ডু।’ পাশে দিন–তারিখ আর স্থানও লিখেছেন—১৮ আগস্ট ২০১৯, হাওয়াই। ভক্তদের শুভকামনাও চেয়েছেন তারা। সেখানে হাজার হাজার ভক্ত অভিনন্দন আর ভালোবাসা প্রকাশ করেছেন। ইনস্টাগ্রামে মাত্র এক ঘণ্টায় ডোয়াইন ‘দ্য রক’ জনসন আর লরেন হাসিনের বিয়ের পরে তোলা ছবির নিচে লাইক পড়েছে ৩৫ লাখ!

রকের প্রথম স্ত্রী ছিলেন প্রযোজক ড্যানি গার্সিয়া। ১৯৯৭ সালের ৩ মে তারা বিয়ে করেন। ২০০১ সালে তাদের মেয়ে সিমোন আলেক্সান্দ্রা জন্মগ্রহণ করে। ২০০৭ সালের জুন মাসে তারা বিবাহ বিচ্ছেদের ঘোষণা দেন। জানান, বাকি জীবন বন্ধু হিসেবে থাকবেন। এরপর রকের জীবনে আসে ৩৪ বছর বয়সী লরেন হাসিন। দীর্ঘদিনের সম্পর্ক তাদের। এক যুগ প্রেম করার পর তারা বিয়ে করলেন!

পিপল ম্যাগাজিনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে রক জানান, খুব বেশি ভাগ্যবান হলেই কেবল লরেন হাসিনের মতো মানুষের সঙ্গে প্রেম করা যায়। ২০১৬ সালে রক-হাসিন দম্পতির প্রথম সন্তান জেসমিন জন্ম নেয়। আর ২০১৮ সালে জন্ম নেয় এই জুটির দ্বিতীয় ও জনসনের তৃতীয় কন্যা টিয়ানা গিয়া।

ইউনিভার্সিটি অফ মায়ামির সাধারণ তরুণ ১৯৯৬ সাল থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত ‘দ্য রক’ নামে ওয়ার্ল্ড রেসলিং ফেডারেশনে (ডব্লিউডব্লিউএফ) তুঙ্গস্পর্শী জনপ্রিয়তা অর্জন করেন। এরপর পা বাড়ান অভিনয়ে। রেসলিং রিং থেকে নেন ছয় বছরের বিরতি। ২০১১ সালে আবারও ফিরে আসেন ডব্লিউডব্লিউই-এর (আগের ডব্লিউডব্লিউএফ) রিংয়ে। ২০১৪ সাল পর্যন্ত তাকে দেখা গেছে রেসলিংয়ের রিংয়ে। এ বছর আগস্ট মাসেই রেসলিং থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন ১০ বারের এই বিশ্বচ্যাম্পিয়ন।

২০১৬ সালে ‘পিপল’ ম্যাগাজিনের মতে, বিশ্বের সবচেয়ে আবেদনময় পুরুষ ডোয়াইন জনসন। সে বছর হলিউডের সর্বোচ্চ অর্থ উপার্জনকারী অভিনেতাও তিনি। টাইম ম্যাগাজিনের বিশ্বের সবচেয়ে প্রভাবশালী ১০০ তারকার তালিকায় তিনি দু’বার স্থান পেয়েছেন, ২০১৬ সালে ও ২০১৯ সালে।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট