বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দরী ১০ মুসলিম নারী; মেহজাবিন সাত

বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দরী ১০ মুসলিম নারী; মেহজাবিন সাত

সম্প্রতি ইউটিউব চ্যানেল টপএক্সবেস্ট টপ টেন মোস্ট বিউটিফুল মুসলিম ওম্যান ইন দ্য ওয়ালার্ড শিরোনামে একটি ভিডিও জরিপ প্রকাশ করেছে।

টপএক্সবেস্ট একটি জনপ্রিয় ইউটিউব চ্যানেল। বিশ্বের বিভিন্ন বিষয়ের ওপর টপ টেন র‌্যাংকিংভিত্তিক বিভিন্ন ভিডিও নির্মাণ করা এবং তা ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করাই মূলত টপএক্সবেস্ট এর কাজ।

জেনে নিন বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দরী ১০ মুসলিম নারী কারা…

০১. রেহাম খান: টপ টেন তালিকার প্রথম স্থানে রয়েছে তার নাম। লিবিয়ার আজাদাবাদে ১৯৭০ সালের ০৩ এপ্রিল রেহাম জন্ম গ্রহণ করেন। একজন পাকিস্তানি সাংবাদিক হিসেবে রেহাম খান বিশ্বব্যাপি পরিচিতি। ২০০৬ সালে একটি আইনি টিভিতে অনুষ্ঠান উপস্থাপনার মাধ্যমে কর্মজীবন শুরু করেন। এরপর ২০০৭ সালে তিনি সানশাইন রেডিও হেরফোর্ড এবং ওয়ারসেস্টারের উপস্থাপনার কাজ করেন। ২০০৮ সালে বিবিসিতে সম্প্রচার সাংবাদিক হিসাবে যোগদান করে। রেহাম খান সম্পর্কে আরো তথ্য জানতে তার ব্যক্তিগত ওয়েবসাইট www.rehamkhanofficial.com ভিজিট করতে পারেন।

০২. কুইন রানিয়া আল আবদুল্লাহ: মূলত তার নাম রানিয়া আল ইয়াসিন। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে তার নাম। ১৯৭০ সালের ৩১ আগস্ট তিনি জন্মগ্রহণ করেন। জর্ডানের রাজা আবদুল্লাহ ইবনে হুসাইনের সাথে বিবাহ বিচ্ছেদের পর থেকে বর্তমান পর্যন্ত তিনি জর্ডানের রাণী। ১৯৯৩ সালের ১০ জুন তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। প্রিন্স হুসেন, প্রিন্স হাশেম এবং রাজকুমারী ইমান, রাজকুমারী সালমা- তাদের চার সন্তান। তিনি ১৯৯১ সালে আমেরিকান বিশ্ববিদ্যালয় অব কায়রো থেকে ব্যবসায় প্রশাসনে স্নাতক ডিগ্রী অর্জন করেন। বিশ্ব্যব্যাপি তিনি শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কমিউনিটি ক্ষমতায়ন, যুব, ক্রস-সাংস্কৃতিক সংলাপ এবং মাইক্রো-ফাইন্যান্স সম্পর্কিত সমর্থনমূলক কাজের জন্য পরিচিত হয়ে উঠেছেন। বহু দেশ থেকে তিনি সমাজসেবা ও উন্নয়নমূলক কাজের স্বীকৃতি স্বরুপ পুরস্কার এবং সম্মানিত ডিগ্রী লাভ করেছেন। www.queenrania.jo এটা হলো কুইন রানিয়া আল আবদুল্লাহর অফিসিয়ার ওয়েবসাইট। এখানে তার সম্পর্কে আরো অনেক বিস্তারিত তথ্য রয়েছে।

০৩. নাওয়াল আল জগ্বি: ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার তৃতীয় স্থান অধিকারী বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দর মুসলিম নারী তিনি। ১৯৯৭২ সালের ২৯ জুন লেবাননে জন্ম গ্রহণ করেন তিনি। নাওয়াল মূলত লেবাননী পপ গায়ক হিসেব বিশ্বব্যাপি পরিচিত বা প্রসিদ্ধ। আরবি ভাষায় গান করলেও উত্তর আমেরিকা ও ইউরোপের আরব প্রবাসীদের মাঝে তার বেশ পরিচিতি রয়েছে তার। সুদীর্ঘ ২৫ বছর যাবৎ তিনি বাদ্যযন্ত্রময় এই পেশায় জড়িয়ে রয়েছেন। সংবেদনশীল পপ সঙ্গীতের সঙ্গে ঐতিহ্যগত আরবী সঙ্গীত এবং উপসাগরীয় উপভাষায় সঙ্গী চর্চা করা ছাড়াও আরবীয় সঙ্গীতে নতুনত্বের আলিঙ্গন করানোর মাধ্যমে তিনি জনপ্রিয়তা অর্জন করে। তিনিই সর্বপ্রথম ৯০ দশকের আরব পপ সঙ্গীতে ভিডিওর ধারা প্রবর্তন করেন। নাওয়াল আল জগ্বির ৫০ মিলিয়ন অ্যালবাম বিক্রি হয়েছে।

০৪. মরিয়ম উজেরিলি: একজন তুর্কি-জার্মান অভিনেত্রী এবং মডেল। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার চতুর্থ স্থানে রয়েছে তার নাম। মারিয়ম ১৯৮৩ সালের ১২ আগস্ট জন্মগ্রহণ করেন। তুর্কি টিভি সিরিজের হুর্রুম সুলতানার চরিত্রে অভিনয় করার মাধ্যমে বিশ্বব্যাপি প্রসিদ্ধি ও পরিচিতি অর্জন করেন তিনি। এই অভিনয় তাকে একটি অভিনন্দনময় জীবনে প্রবেশ করতে সহযোগিতা করেছে। এজন্য তিনি সমালোচকদের বেশ প্রশংসা কুড়িয়েছেন। ২০১০ থেকে ২০১৬ এই ছয় বছরে প্রায় ত্রিশের অধিক পুরস্কার ও অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন তিনি। যার মধ্যে গোল্ডেন বিউটিফুল অ্যাওয়ার্ড অন্যতম। একটি জার্মান প্রযোজনা সংস্থায় কাজ করার মাধ্যমে মরিয়ম উজেরিলির অভিনয় জীবনে আত্মপ্রকাশ ঘটে। পরে তিনি বিভিন্ন টেলিভিশন সিরিজ অভিনয় করেন। অভিনয়গত কর্মজীবনের পাশাপাশি উজারিলি অনেক বিজ্ঞাপনচিত্রের কাজ করেছেন। ২০১২ সালে তিনি জিকিউ তুরস্ক কর্তৃক বর্ষসেরা নারী নির্বাচিত হয়েছিলেন।

০৫. বাহারেহ কিয়ান আফসার: তিনি একজন সুপরিচিত ইরানী অভিনেত্রী। আফসার ছাড়া ইরানী চলচ্চিত্র যেন একেবারেই রসহীন বস্তু। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার পঞ্চম স্থান অধিকারী বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দরী মুসলিম নারী তিনি। তার সঠিক জন্ম সন জানা যায়নি। অনেক চলচিত্র অভিনয় করেছেন তিনি। কাফশাহাম কু (আমার জুতা), হিক কোজা হি কাস (নো ওয়ার নো বডি) এবং ’দ্য সাইনারস’ তার অভিনিত বিখ্যাত সব ইরানী চলচ্চিত্র। সিনেমায় অভিনয় করার পাশাপাশি তিনি বিভিন্ন টিভি সিরিয়াল ও নাটক ও বিজ্ঞাপনচিত্রেও অভিনয় করেন।

০৬. মেসগান হুসাইনী: ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার ষষ্ঠ স্থান অধিকারী বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দর মুসলিম নারী তিনি। তিনি মূলত একজন মেকআপ শিল্পী। বিশ্বের বিখ্যাত অনেক সেলিব্রিটি অভিনেতা ও অভিনেত্রীর সঙ্গে কাজ করেন হুসাইনী। ১৯৭৩ সালের ২৪ মার্চ আফগানিস্তানে জন্মগ্রহণ করেন। বহু বছর থেকে মেসগান হুসাইনী আমেরিকান একজন আইডল মেকআপ শিল্পী হিসেবে পরিচিত ও সমাদৃত। মেকআপ শিল্পী হওয়ার আগে হুসাইনি লস এঞ্জেলেসে একটি ডিপার্টমেন্ট স্টোরের মেকআপ পণ্য বিক্রি করতেন।

০৭. মেহজাবিন চৌধুরী: বাংলাদেশের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও মডেল। লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টারে নির্বাচিত হওয়ার মাধ্যমে শোবিজ জগতে আলোচনায় আসেন এবং নিজস্ব মেধা ও স্বকীয়তার গুণে একটি অবস্থান গড়ে তুলতে সক্ষম হন। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার সপ্তম স্থান অধিকারী বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দর মুসলিম নারী তিনি। তার জন্ম ১৯ এপ্রিল ১৯৯১ সালে। বর্তমানে তিনি বাংলাদেশের সফল টিভি অভিনেত্রী এবং মডেল।

০৮. রানা আল হাদ্দাদ: তিনি একজন ইয়েমেনী গায়ক। যারা কণ্ঠকে বিশ্বের অন্যতম সেরা ‘উত্তেজনাপূর্ণ ভয়েস’ বলা হয়ে থাকে। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার অষ্টম স্থানে রয়েছে তার নাম। তিনি সুপ্রতিষ্ঠিত ইয়েমেনী গায়ক আবদুর রহমান আল-হাদ্দের মেয়ে। জীবনের প্রথম দেশপ্রেমিক ও ধর্মীয় আবেগের মিশেল একটি গান গেয়ে আলোচনায় আসেন তিনি। এরপর আর তাকে পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি। মর্মষ্পর্শী কণ্ঠের জাদুতে মাতাল করেছেন গোটা বিশ্বকে। সম্প্রতি তিনি প্রিন্স আলওয়ালিদ বিন তালালের মালিকানাধীন সৌদি সঙ্গীত কোম্পানির সাথে তিন বছরের চুক্তিতে আবদ্ধ হয়েছেন। গভীর কালো চোখের কারণে তিনি আরো বেশি আকর্ষণীয় বিবেচিত। বিখ্যাত একজন সঙ্গীতশিল্পী হলেও মাঝে মাঝে তিনি অভিনয়ও করেন।

০৯. দনিয়া সমীর ঘানেম: তিনি একজন মিশরীয় অভিনেত্রী এবং গায়ক। ১৯৮৫ সালের ১ জানুয়ারি জন্মগ্রহণ করেন তিনি। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার নবম স্থানে রয়েছে তার নাম। দনিয়া সমীর ঘানেম অভিনেতা সামির ইউসুফ ঘানেম এবং দালাল আব্দুল আজিজের কন্যা। আর তার বোনের নাম আমির আমাল। দনিয়া তার শৈশবাগত জীবনের শুরুতে ২০০১ সালে ‘বিচারপতি অনেক মুখ’ নামে একটি টিভি শোতে প্রথম কাজ করার মাধ্যমে বিশ্ববাসীর মনযোগ আকৃষ্ট করতে সক্ষম হন। এরপর ২০০৫ সালে কমেডিয়ান মোহাম্মদ হেনেসির সাথে তার প্রথম ছবিটি ছিল। www.doniasamirghanem.com ব্যক্তিগত ওয়েবসাইট এটি। এখান থেকে তার সম্পর্কে আরো তথ্য জানা যেতে পারে।

১০. লিয়া বখতি: আলজেরিয়ান বংশদ্ভুত একজন ফরাসি চলচ্চিত্র এবং টেলিভিশন অভিনেত্রী। ১৯৮৪ সালের ০৬ মার্চ এক আলজেরীয় পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। ভিডিও জরিপটির টপ টেন তালিকার দশম স্থান অধিকারী বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দর মুসলিম নারী তিনি। কবিলি থেকে ঐতিহ্য লাভ করেছেন লিয়া। তিন সন্তানদের মধ্যে সর্বকনিষ্ঠ তিনি। ফরাসি অভিনেতা তাহার রহিমের সাথে বিয়ে হয় রিয়া বখতির, যার সাথে তিনি ২০০৭ সালে প্রথম একটি নাটকে অভিনয় করেছিলেন। অভিনয় জীবনে বহু পুরস্কার ও অ্যাওয়ার্ড লাভ করেছেন লিয়া বখতি।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট