মিরাজের পাঁচ উইকেট শিকার

মিরাজের পাঁচ উইকেট শিকার

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে জ্যামাইকা টেস্টের প্রথম দিনে ৩ উইকেট নিয়েছিলেন মিরাজ। দ্বিতীয় দিনে পরপর দুই বলে নিয়ছেন দুটি। সব মিলিয়ে ৯৩ রানে নিয়েছেন ৫ উইকেট।

জ্যামাইকা টেস্টের প্রথম ইনিংসে স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৩৫৪ রানে অলআউট করেছে টাইগাররা।

বাংলাদেশের কোনো বোলার দেশের বাইরে সবশেষ ৫ উইকেট নিয়েছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজেই। ২০১৪ সালের সফরে প্রথম টেস্টে সেন্ট ভিনসেন্টে ১৩৫ রানে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন অভিষিক্ত তাইজুল ইসলাম। চার বছর পর দেশের বাইরে এই সময়ের দশম টেস্টে আবার ৫ উইকেট নিলেন মিরাজ।

বাংলাদেশের কোনো অফ স্পিনারের দেশের বাইরে ৫ উইকেট নেওয়ার ঘটনাই আছে মিরাজ ছাড়া কেবল একটি। সেটিও ওয়েস্ট ইন্ডিজে। ২০০৯ সালে সেন্ট ভিনসেন্টেই টেস্ট অভিষেকে ৫১ রানে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন মাহমুদউল্লাহ।

সব মিলিয়ে বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে দেশের বাইরে চারবার ৫ উইকেট নিয়েছেন সাকিব আল হাসান। মোহাম্মদ রফিক নিয়েছেন তিন বার। পেসারদের মধ্যে দেশের বাইরে একাধিকবার ৫ উইকেট নেওয়া একমাত্র বোলার রবিউল ইসলাম। ২০১৩ সালের জিম্বাবুয়ে সফরে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন দুইবার।

সংক্ষিপ্ত স্কোরওয়েস্ট ইন্ডিজ প্রথম ইনিংস: ২৯৫/৪* (৯২ ওভার)

(ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট ১১০, ডেভন স্মিথ ২, কাইরান পাওয়েল ২৯, শাই হোপ ২৯, শিমরন হেটমায়ার ৮৬, রস্টন রেজ ২০, শেন ডাউরিচ ৬, জ্যাসন হোল্ডার ৩৩*, কিমো পল ০, মিগুয়েল কামিন্স ০, শ্যানন গ্যাব্রিয়েল ১২; আবু জায়েদ রাহি ৩/৩৮, সাকিব আল হাসান ০/৬০, মেহেদী হাসান মিরাজ ৫/৯৩, তাইজুল ইসলাম ২/৮২, কামরুল ইসলাম রাব্বী ০/৩৪, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ০/২০)।

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস: ৯২/৪* (২৮ ওভার)

(তামিম ইকবাল ৪০*, লিটন দাস ১২, মুমিনুল হক ০, সাকিব আল হাসান ৩২, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ০, মুশফিকুর রহিম ৪*; শ্যানন গ্যাব্রিয়েল ২/৮, কিমো পল ০/১৩, মিগুয়েল কামিন্স ০/১৯, জ্যাসন হোল্ডার ২/২৯, রস্টন চেজ ০/২২)।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট