রথীশ হত্যা মামলার আসামির মৃত্যু

রথীশ হত্যা মামলার আসামির মৃত্যু

রংপুরের বিশেষ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) আইনজীবী রথীশ চন্দ্র ভৌমিক ওরফে বাবু সোনা হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার মিলন মোহন্ত মারা গেছেন।

শুক্রবার রাত ৯টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রিজন সেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাসপাতালের পরিচালক অজয় কুমার রায়।

রথীশ চন্দ্রের সহকারী হিসেবে ছিলেন মিলন মোহন্ত। তাকে মোটরসাইকেলে করে বিভিন্ন স্থানে আনা-নেয়া থেকে শুরু করে যাবতীয় কাজ করতেন মিলন।

রথীশ চন্দ্র হত্যার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে ১ এপ্রিল মিলনকে রংপুর শহরের কাচারিবাজার থেকে গ্রেফতার করা হয়।

১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি আদায়ের জন্য মিলনকে ৫ এপ্রিল আদালতে হাজির করা হয়। তবে অসুস্থ থাকায় আদালত তার স্বীকারোক্তি গ্রহণ না করায় কারাগারে ফেরত নিয়ে যাওয়া হয়। পরে ওই দিন মিলনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

উল্লেখ্য, ২৯ মার্চ রাতে রথীশকে ভাত ও দুধের সঙ্গে ১০টি ঘুমের বড়ি খাইয়ে অচেতন করে ওড়না দিয়ে পেঁচিয়ে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়। পরদিন সকালে শিক্ষক কামরুল একটি ভ্যান নিয়ে আসেন। আলমারি পরিবর্তনের নাম করে সেই আলমারিতে লাশ ভরে নিয়ে তাদের বাড়ি থেকে প্রায় আধা কিলোমিটার দূরে শহরের তাজহাট মোল্লাপাড়া এলাকায় একটি নির্মাণাধীন বাড়িতে বালু খুঁড়ে পুঁতে রাখেন। ৩ এপ্রিল রাতে র‍্যাব ওই ভবনের ভেতর থেকে মাটি খুঁড়ে মৃতদেহ উদ্ধার করে।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট