র‍্যাম্পে হাঁটতে হাঁটতে সন্তানকে স্তন্যপান মডেলের, ভাইরাল ভিডিও

র‍্যাম্পে হাঁটতে হাঁটতে সন্তানকে স্তন্যপান মডেলের, ভাইরাল ভিডিও

মিয়ামিতে একজন আমেরিকান মডেল ক্যাটওয়াকে স্তন্যপানরত শিশুকন্যাকে নিয়ে সামিল হলেন- যেখানে আজও বিশ্বের একটা বৃহৎ সংখ্যক মহিলা জনসমক্ষে স্তন্যপান করাতে কুণ্ঠা বোধ করেন।

রবিবার স্পোর্টস ইলাস্ট্রেটেড স্যুইমস্যুটের শো-তে মারা মার্টিন একটা চকচকে সোনালী রঙের বিকিনি পরে পাঁচ মাসের স্তন্যপানরত কন্যা সন্তান আরিয়াকে নিয়েই মঞ্চে উঠে আসেন।

পরের দিন একটা ইনস্টাগ্রাম পোস্টে মার্টিন জনগণের প্রতিক্রিয়ার জন্য সকলকে ধন্যবাদ জানান- যা ইনস্টাগ্রামে তাঁর নিউজফিডে ছড়িয়ে থাকা সমস্ত সমালোচনাকে মোক্ষম জবাব দেয়।

“আমি সকালে উঠে একটা অত্যন্ত সাধারণ দৈনন্দিন কাজের জন্য সংবাদ শিরোনামে নিজেকে এবং মেয়েকে দেখে তাজ্জব হয়ে যাই”, তিনি লেখেন “এটা সত্যিই অত্যন্ত অপমানজনক এবং কথাগুলো অত্যন্ত অসত্য।”

“এই বার্তাটা ছড়িয়ে দিতে পেরে আমি নিজেকে ধন্য মনে করি এবং আশা করি এই ভাবে সর্বসাধারণের মধ্যে স্তন্যপানের সচেতনতা তৈরি করতে পারবো এবং সকলকে বুঝিয়ে দিতে পারবো নারী সব পারে!”

মঙ্গলবার এনবিসি-র “টুডে”-র একটা সাক্ষাৎকারে মার্টিন এবং আয়োজক সংস্থার প্রতিনিধি জানান, আরিয়াকে মঞ্চেই স্তন্যপান করানোর সিদ্ধান্ত তাৎক্ষণিক ও স্বতঃস্ফূর্ত ছিল।

“ওর রাতে খাওয়ার সময় হয়ে যাওয়ায় ওর খিদে পেয়ে গিয়েছিল কারণ শো শুরু হতে সময় লাগছিল”, “টুডে”-কে জানান মার্টিন। আর যখনই উদ্যোক্তারা আরিয়াকে সঙ্গে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তাব দিলে তিনি সম্মতি জানান।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে নিয়মিত জনসমক্ষে স্তন্যপান করানোর বিষয়ে বিতর্ক চলছে, যেখানে মহিলাদের তাঁদের শিশুদের স্তন্যপান করাতে উৎসাহ দেওয়া হচ্ছে কারণ বেশীরভাগ মহিলাই সন্তানের জন্মের কয়েক সপ্তাহ পর থেকেই কর্মক্ষেত্রে ফেরত যান। স্তন্যপানের ঘটনা অত্যন্ত সাধারণ হলেও আজও সমাজে বহু মানুষ জনসমক্ষে স্তন্যপানকে করানোকে ভালভাবে গ্রহণ করে না।

ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন বা হু-এর নির্দেশ অনুসারে ছয় মাস পর্যন্ত শিশুকে স্তন্যপান করানো আবশ্যক এবং দুই বছর বা তার বেশি বয়স পর্যন্ত মাঝে মধ্যে শিশুকে স্তন্যপান করানোর অভ্যাস রাখা উচিত।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট