শান্তি-সমৃদ্ধি এবং ক্ষমা প্রার্থনায় পবিত্র শবে বরাত পালিত

শান্তি-সমৃদ্ধি এবং ক্ষমা প্রার্থনায় পবিত্র শবে বরাত পালিত

যথাযথ ধর্মীয় ভাব-গাম্ভীর্য ও ইবাদত বন্দেগীর মধ্য দিয়ে পালিত হলো পবিত্র শবে বরাত। মহিমান্বিত এই ভাগ্য রজনীতে মহান আল্লাহর দরবারে ভুল-ভ্রান্তি ও গুণাহ মাপের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা ও কল্যাণ কামনা করে মুসলমানরা।

মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর থেকেই রাজধানীসহ সারাদেশে জিকির-আসগার ও নফল ইবাদতে মশগুল ছিলেন মুসলমানরা। ভোর রাতে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয় আয়োজন।

শাবান মাসের চৌদ্দ তারিখ দিবাগত রাত মুসলমানদের কাছে মর্যাদাপূর্ণ ‘লাইলাতুল বরাত বা শবে বরাত’। ইসলাম ধর্মমতে মহান আল্লাহ এই রাতেই বান্দার ভাগ্য নির্ধারণ করেন। একারণেই শবে বরাত হলো ভাগ্যের রজনী।

পবিত্র এই রাতে জীবনের সব ভুল-ভ্রান্তি ও কর্মের জন্য সৃষ্টিকর্তার কাছে গভীর অনুশোচনায় আত্মসমর্পণ করেন বান্দারা। কামনা করেন সঠিক পথ, ঈমান ও কল্যাণময় জীবনের।

এজন্য নফল নামাজ, জিকির-আসকার, কোরআন তেলাওয়াত করা হয়। বাবা-মা ও প্রিয়জনের কবর জিয়ারত করা হয়, তাদের আত্মার শান্তির আশায় করা হয় দোয়া।

ফজিলতে পরিপূর্ণ এই রাতে মসজিদ, বাসা-বাড়িতে মিলাদ মাহফিল ও দোয়ার আয়োজন করে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। এ উপলক্ষ্যে রাজধানীতে করা হয় আলোকসজ্জা। পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

ভোর রাতে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয় আয়োজন। জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে মোনাজাতে চাওয়া হয় বিশ্ব মুসলমানের সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধি।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট