সিরিয়ায় ‘রাষ্ট্রের ভেতরে রাষ্ট্র’ প্রতিষ্ঠা করতে চায় আমেরিকা: ল্যাভরভ

সিরিয়ায় ‘রাষ্ট্রের ভেতরে রাষ্ট্র’ প্রতিষ্ঠা করতে চায় আমেরিকা: ল্যাভরভ

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ বলেছেন, সিরিয়ায় ‘রাষ্ট্রের ভেতরে রাষ্ট্র’ প্রতিষ্ঠা করতে চায় আমেরিকা। এজন্য মার্কিন সরকার সেখানকার মিত্রদের বিশেষ করে কুর্দিদের ব্যবহার করে ফোরাত নদীর পূর্ব উপকূলে অবৈধ রাষ্ট্র কাঠামো গড়ে তোলার চেষ্টা করছে।

ল্যাভরভ বলেন, ফোরাত নদীর পূর্ব উপকূলে বিশাল এলাকা জুড়ে এমন কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে যা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। গতকাল (শুক্রবার) রাশিয়ার সরকারি টেলিভিশন চ্যানেল আরটি এবং ফ্রান্সের ‘প্যারিস ম্যাচ’ এবং ‘লা ফিগারো’ পত্রিকাকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ল্যাভরভ এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, “আমেরিকা তার সর্বশক্তি দিয়ে ফোরাত নদীর পূর্ব উপকূলের ভূখণ্ডকে ব্যবহার করে এই আধা-রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার চেষ্টা করছে; এমনকি তারা এমন অবস্থা তৈরির চেষ্টা করছে যাতে মনে হবে সবকিছু স্বাভাবিক আছে। তারা সেখানে এমন একটি সরকার প্রতিষ্ঠার চেষ্টা করছে যা হবে সিরিয়ার বৈধ রাষ্ট্রের বিকল্প।”

সিরিয়ার শরণার্থীদের ফিরে আসাকে আমেরিকা অনুৎসাহিত করছে বলেও উল্লেখ করেন রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, এর মাধ্যমে মার্কিন সরকার সিরিয়ায় শান্তি প্রক্রিয়াকে বাধাগ্রস্ত করতে চাইছে।

ল্যাভরভ দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, মার্কিন সরকার সিরিয়া ও ইরাক নিয়ে ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে চায় কিন্তু এ ধরনের তৎপরতার ফলাফল কখনো ভালো হয় না।

*রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন*
সম্পর্কিত সংবাদ
Leave a reply
ডেস্ক রিপোর্ট