”হাজির বিরিয়ানি”র গানে অশ্লীল ও আপত্তিকর কথা, ব্যাখ্যা চাইলেন সেন্সর বোর্ড

”হাজির বিরিয়ানি”র গানে অশ্লীল ও আপত্তিকর কথা, ব্যাখ্যা চাইলেন সেন্সর বোর্ড

এবার দহন ছবির ‘হাজির বিরিয়ানি’ গানের বিরুদ্ধে নোটিশ পাঠিয়েছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ড। ৪ নভেম্বর সেন্সর বোর্ডের পক্ষে এই চিঠি ইস্যু করেন সেন্সর বোর্ডের সচিব মোহাম্মদ আলী সরকার।

চিঠিতে বলা হয়েছে, দহন ছবিটি সেন্সর ছাড়পত্র পাওয়ার আগেই ছবিটির ‘হাজীর বিরিয়ানি’ গানটি ইউটিউবে প্রকাশ করা হয়েছে। সেন্সরবিহীন গানের কথাটি অশ্লীল ও আপত্তিকর।

এমতাবস্থায়, সেন্সরবিহীন গান প্রদর্শনের দায়ে কেন আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তা পত্র প্রাপ্তির তিন কার্যদিবসের মধ্যে ব্যাখ্যা প্রদানের জন্য জাজ মাল্টিমিডিয়াকে নির্দেশ দিয়েছে চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ড।

অন্যদিকে গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিমের সঙ্গে দেখা করেছেন চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত সুরকার, সংগীত পরিচালক ও গীতিকারদের একটি প্রতিনিধি দল। বাংলাদেশের সিনেমায় এ ধরনের গান যেন নিষিদ্ধ করা হয় এবং হাজির বিরিয়ানি গানটি যেন কোনোভাবেই সেন্সর ছাড়পত্র না পায়, অনুরোধ জানিয়েছেন শিল্পীদের পক্ষ থেকে প্রতিনিধিরা।

প্রতিনিধি দল অনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিমন্ত্রীর কাছে একটি প্রতিবাদলিপিও জমা দেন। এ প্রতিবাদলিপিতে স্বাক্ষর করেছেন সাবিনা ইয়াসমিন, আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল, এন্ড্রু কিশোর, কনকাচাঁপা, ফুয়াদ নাসের বাবু, কুমার বিশ্বজিৎ, ফাহমিদা নবী, বাপ্পা মজুমদার, শফিক তুহিন, হাসান মতিউর রহমান, কিশোর, মুহিনসহ মোট ৭১ জন গায়ক–গায়িকা, গীতিকার, সুরকার ও সংগীত পরিচালক।

রায়হান রাফি পরিচালিত ছবির গানটির কথা লিখেছেন ভারতের কলকাতার প্রিয় চট্টোপাধ্যায়। সংগীত পরিচালনা করেছেন ও গেয়েছেন কলকাতার আকাশ সেন।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট