হারমানপ্রীতের দানবীয় ব্যাটিংয়ে ফাইনালে ভারত

হারমানপ্রীতের দানবীয় ব্যাটিংয়ে ফাইনালে ভারত

ছ’বারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে মহিলা ক্রিকেট বিশ্বকাপের ফাইনালে পৌঁছল ভারত৷ বৃহস্পতিবার ডার্বিতে অস্ট্রেলিয়াকে ৩৬ রানে হারিয়ে রোববার ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে খেতাবের লড়াইয়ে নামবে মিতালি অ্যান্ড কোং৷ ১৯৮৩-তে কপিল দেবের ভারতের পর ফের লর্ডসে বিশ্বকাপ ফাইনাল খেলতে নামবে ভারত৷ রবিবার ক্রিকেট তীর্থক্ষেত্র ইংল্যান্ডকে হারাতে পারলে প্রথমবার বিশ্বজয়ের স্বাদ পাবে ভারতের প্রমীলাবাহিনী৷

মনপ্রীত কাউরের দুরন্ত সেঞ্চুরিতে ফাইনালে ওঠার লড়াই অস্ট্রেলিয়াকে বড় রানের টার্গেট দেয় ভারত৷ বৃষ্টিবিঘ্নিত সেমিফাইনালে ৪২ ওভারের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার সামনে ২৮২ রানের টার্গেট দেয় মিতালি অ্যান্ড কোং৷ ১৭১ রানের রাজকীয় ইনিংস খেলেন পঞ্জাব তনয়া৷ ওয়ান ডে ক্রিকেটে পঞ্চম মহিলা হিসেবে ‘ক্যারি দ্য ব্যাট’-এর নজির গড়েন হরমনপ্রীত৷ একই সঙ্গে বিশ্বকাপের নক-আউট পর্বে সর্বোচ্চ রানের মালিক হন তিনি৷

ম্যাচের সেরা রেকর্ড সেঞ্চুরিকারী পাঞ্জাব তনয়া৷ এর আগে প্রথম ভারতীয় মহিলা হিসেবে ওয়ান ডে-তে ‘ক্যারি দ্য ব্যাট’ হিসেবে নজির গড়েন পূর্ণিমা রাও৷

কিন্তু মহিলাদের হরমনপ্রীতই প্রথম যিনি ওপেন করতে নেমে সেঞ্চুরি করে শেষ পর্যন্ত অপরাজিত থাকলেন৷ ১১৫ বলে ২০টি বাউন্ডারি ও সাত ছক্কায় ১৭১ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন হরমনপ্রীত৷ ভারতীয় ইনিংসের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্কোর অধিনায়িক মিতালি রাজের ৩৬৷

এদিন বৃষ্টিবিঘ্নিত সেমিফাইনালে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত ভারতের৷বৃষ্টির জন্য এদিন নির্ধারিত সময়ে খেলা শুরু হয়নি৷ তিন ঘণ্টা পর খেলা শুরু হয়৷ম্যাচ হয় ৪২ ওভারের৷দ্বিতীয় ভারতীয় মহিলা হিসেবে ওয়ান ডে ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রান করেন হরমনপ্রীত৷ বিশ্বকাপে যা চতুর্থ সর্বোচ্চ রান।

আগেই মহিলা বিশ্বকাপ ক্রিকেট ফাইনালে উঠেছে আয়োজক ইংল্যান্ড৷ প্রথম সেমিফাইনালে রুদ্ধশ্বাস লড়াইয়ে দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারায় তারা৷

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট