১৫০ নারীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ সম্পর্ক ছিল সালমানের

১৫০ নারীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ সম্পর্ক ছিল সালমানের

ইউটিউবার সালমান মুক্তাদির ও মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ-২০১৭ জেসিয়া ইসলামের সম্পর্কের কথা কারো অজানা নয়। সোশ্যাল মিডিয়াতেই তারা নিজেদের ঘনিষ্ঠ মুহূর্তগুলো শেয়ার করেন। যদিও সালমান মুক্তাদির তাদের সম্পর্কটিকে ‘প্রেম’ বলতে রাজি নন। তার মতে, এটা একটা বন্ধুত্বের মতো সম্পর্ক। তবে ভালোবাসা নয়।

এদিকে জেসিয়ার আগেও সালমানের জীবনে ছিলো অনেক নারী। এমনটা জানালেন সালমান নিজেই। তিনি জানান, জেসিয়ার আগে আরো অন্তত ১৫০ জন নারীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক ছিলো তার।

বৃহস্পতিবার (৪ অক্টোবর) একটি রেডিও অনুষ্ঠানে অতিথি হয়ে আসেন সালমান-জেসিয়া। সেখানে নিজেদের সম্পর্কের ব্যাপারে কথা বলেছেন তারা। সেখানে সালমান মুক্তাদির জানান, শোবিজের অনেক নারীর সঙ্গেই তার সম্পর্ক ছিলো, যারা তার চেয়েও বয়সে বড়। তবে কোনো সম্পর্কেই তিনি সিরিয়াস ছিলেন না। আর এই সম্পর্কগুলোর কথা জেসিয়াকে তিনি জানিয়েছেন।

সালমানের ভাষ্য, আমি যখন খ্যাতি, জনপ্রিয়তা ও প্রচুর অর্থ হাতে পাই তখন আমার বয়স মাত্র ১৯। এ বয়সে যদি আপনি এতটা স্বাধীনতা পেয়ে যান তখন আপনার মনে হবে আপনি ক্ষমতা হাতে পেয়ে গেছেন। আর তখন ঠিক-ভুলের তফাৎ বোঝা কঠিন হয়ে দাঁড়ায়!

ভালোবাসার সম্পর্ক নিয়ে বিশেষ ওই রেডিও অনুষ্ঠানে গুরু এহতেশামের অনুরোধে জেসিয়াকে প্রকাশ্যে চুমু খেয়েছেন সালমান। নিজেদের সম্পর্কের কথা বলতে বলতে যখন কিছুটা আবেগপ্রবণ হয়ে যান সালমান, তখন গুরু এহতেশাম বলে বসেন, তোমরা একে অপরের হাত ধরো নিশ্চয়ই, একটু হাত ধরে দেখাও। চুমুও দিয়ে থাকো হয়তো কিভাবে চুমু দাও দেখাবে?

সালমান তখন ঝটপট জেসিয়ার গালে চুমু খান। এমন দৃশ্যে অবাক হন গুরু এহতেশাম নিজেও বললেন, দীর্ঘ ১২ বছরে আমার স্টুডিতে এমন ঘটনা কখনো ঘটেনি।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট