৮৫ রানে অলআউট হয়ে অজিদের লজ্জা

৮৫ রানে অলআউট হয়ে অজিদের লজ্জা

দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে ওয়ানডে সিরিজে ০-৫ ব্যবধানে হোয়াইটওয়াশ হওয়ার পর ঘরের মাঠে প্রোটিয়াদের বিপক্ষে অজিরা প্রতিশোধ নেওয়ার দারুণ সুযোগ পেয়েছিল। কিন্তু উল্টো দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে ঘরের মাঠেই টেস্ট সিরিজে নাকাল হতে শুরু করেছে স্টিভেন স্মিথের দল। হোবার্ট টেস্টের প্রথম দিন দক্ষিণ আফ্রিকার বোলারদের তোপের মুখে পড়ে লজ্জার রেকর্ড গড়েছে অস্ট্রেলিয়া। নিজেদের টেস্ট ইতিহাসের প্রথম ইনিংসে সবচেয়ে কম রানে ৫ উইকেট হারানোর লজ্জার রেকর্ড গড়েছে স্বাগতিকরা।

হোবার্টে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ভারনন ফিল্যান্ডার ও কাইল অ্যাবটের বোলিং তোপে পড়ে মাত্র ১৭ রান তুলতেই পাঁচ শীর্ষ ব্যাটসম্যানকে হারিয়ে লজ্জার রেকর্ড গড়ে অস্ট্রেলিয়া। এর আগে গত বছর নটিংহ্যাম টেস্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২১ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়েছিল অজিরা। শেষ পর্যন্ত হোবার্ট টেস্টের প্রথম ইনিংসে মাত্র ৮৫ রানেই গুটিয়ে যায় স্মিথের দল।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ধ্বংসযজ্ঞের মধ্যে দাঁড়িয়ে ৪৮ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন অধিনায়ক স্মিথ। অভিষিক্ত পেসার জো ম্যানির ব্যাট থেকে আসে ১০ রান। এছাড়া ডেভিড ওয়ার্নার (১), জো বার্নস (১), উসমান খাজা (৪), অ্যাডাম ভোজেস (০), কালাম ফার্গুসন (৩) ও পিটার নেভিল (৩)- সবার নামের পাশেই মোবাইলের ডিজিট।

দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ১০.১ ওভারের বিধ্বংসী স্পেলে ২১ রান দিয়ে ৫ উইকেট নেন ফিল্যান্ডার। এছাড়া অ্যাবট তিনটি ও ক্যাগিসো রাবাদা নেন একটি উইকেট।

প্রথম ওভারের শেষ বলে ফিল্যান্ডারের বলে ওয়ার্নারের বিদায়ের মধ্য দিয়ে অস্ট্রেলিয়ার পতনের শুরু। এরপর অ্যাবটের করা দ্বিতীয় ওভারের শেষ বলে ফিরে যান বার্নস। দলীয় ৮ রানের মাথায় আউট হন খাজা ও ভোজেসও।

অধিনায়ক স্মিথ একপ্রান্ত আগলে রেখে দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেছিলেন। তবে দলীয় ১৭ রানের মাথায় ফার্গুসন রানআউট হয়ে সাজঘরে ফিরলে সেই চেষ্টা বিফলে যায়। দলীয় ৩১ রানের মাথায় নেভিল যখন ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে ক্যাগিসো রাবাদার বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়ে সাজঘরে ফেরেন তখন ম্যাচ থেকে পুরোপুরি ছিটকে যায় অস্ট্রেলিয়া।

সপ্তম উইকেটে জো ম্যানিকে নিয়ে ২৮ রানের জুটি গড়েন স্মিথ। দলীয় ৫৯ রানের মাথায় ম্যানিকে বোল্ড করে অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরোধ ভাঙেন ফিল্যান্ডার। ৬৬ রানের মাথায় মিচেল স্টার্ককে আউট করে দক্ষিণ আফ্রিকাকে উল্লাসে ভাসান অ্যাবট।

এরপর আর মাথা তুলে দাঁড়াতে পারেনি অস্ট্রেলিয়া। দলীয় ৭৬ রানের মাথায় জস হ্যাজেলউডকে ক্যাচ আউটের শিকার বানিয়ে অজিদের লজ্জার মুখে ঠেলে দেন অ্যাবট। কিছুক্ষণ পর দলীয় ৮৫ রানের মাথায় নাথান লায়নকে আউট করে ৫ উইকেটের মাইলফলক স্পর্শ করেন ফিল্যান্ডার। অপর প্রান্তে তখন নির্বিকার হয়ে দাঁড়িয়ে ছিলেন অধিনায়ক স্মিথ।

প্রসঙ্গত, পার্থ টেস্টে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। হোবার্ট টেস্টে জিততে পারলেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের পর মাত্র দ্বিতীয় দল হিসেবে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টানা তিনটি টেস্ট সিরিজ জয়ের অনন্য রেকর্ড গড়তে পারবে প্রোটিয়ারা।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট