বিশ্বের চোখ জুড়ানো ১০টি ভয়ঙ্কর বিল্ডিং !

বিশ্বের চোখ জুড়ানো ১০টি ভয়ঙ্কর বিল্ডিং !

জীবনে রোমাঞ্চ পছন্দ? ভয়কে জয় করে সবসময় ঝুঁকি নেওয়ার পক্ষে আপনি? শিল্পের পূজারী? আপনি কি সুপারহিরোর থেকে সুপারভিলেনদের বেশী পছন্দ করে? প্রশ্ন গুলির উত্তর যদি ‘হ্যাঁ’ হয় তাহলে বিশ্বের চোখ জুড়ানো ১০টি ভয়ঙ্কর বিল্ডিং আপনার জন্য অপেক্ষা করছে। বাইরে থেকে প্রথম বারের জন্য দেখলে ঠিক হরর মুভির মতোই চমকে যাবেন। কিন্তু চোখ এড়াতে পারবেন না। রোমহর্ষক এই বিল্ডিং গুলো দেখলে প্রথমে থমকে গেলেও, পড়ে বিল্ডিং এর ভিতরে ঢুকে দেখতে ইচ্ছা করবে। তাই এই বিল্ডিং এর ছবিগুলো নিয়ে ডাকপিয়ন২৪ পাঠকদের জন্য রইলও কিছু অজানা তথ্য-

1

ফিলাদেলফিয়া সিটি হলঃ ফিলাদেলফিয়ার এই বিল্ডিং দেখলে কোনও হরর ছবির দূর্গের চেয়ে কম লাগবে না।

2

পলিগন রিভিয়েরা, ফ্রান্সঃ দেখলে মনে হবে বিল্ডিং ফুড়ে কোনও অতিকায় দৈত্য বেরিয়ে আসছে।

3

মাহানখোন টাওয়ার, ব্যাংককঃ এই বিল্ডিং বাইরে থেকে দেখলে মনে হবে যে এক্ষুণি ভেঙে পড়বে। তবে রাতে আলো ঝলমলে বিল্ডিং থেকে চোখ ফেরানো যায় না।

4

বুজুলুদঝা, বুলজেরিয়াঃ নিস্তব্ধ এলাকায় যেন মাটি ফুঁড়ে সৃষ্টি হয়েছে এই বিল্ডিং।

5

ফর্মার রিসার্চ ইনস্টিটিউট ফর এক্সপেরিমেন্টাল মেডিসিন, বার্লিনঃ বাইরে থেকে দেখলে মনে হবে যেন কোনও পুরনো দিনের গোলোকধাঁধা।

6

রিভারসাইড মিউজিয়াম, ইংল্যান্ডঃ এর চূড়া দেখলে মনে হবে কোনও রূপকথার গল্পের ডাইনির বাড়ি।

7

মাইসন, ব্রাসেলস, বেলজিয়ামঃ এ যেন ড্রাকুলার প্রাসাদ। রাতের অন্ধকারে রাস্তায় দাঁড়িয়ে কাঁচের ওপারে কাউকে দেখলে ভূত বলেই মনে হবে।

8

ক্যাথলিক চার্চ, হাঙ্গেরিঃ হ্যারি পটার অ্যান্ড দ্য সরসরাস স্টোন ছবির কালো দূর্গটির কথা মনে আছে তো? এই বিল্ডিংটিও তেমনই দেখতে।

9

ব্যাহনোফ অফিস, স্টকহোম, সুইডেনঃ রূপকথার গল্পে দৈত্যরা রাজকুমারীদের এমন জায়গাতেই তো আটকে রাখতো। তবে এযুগে এমন জায়গায় থাকতে পারা সবার স্বপ্ন।

10

ফোর্ট আলেক্সান্ডার, রাশিয়াঃ জলের মাঝখানে জনবিহীন এই প্রাসাদে থাকা সত্যিই রোমহর্ষক।

 

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট