ডাল বা দানাশস্য ডায়াবেটিসের যম

ডাল বা দানাশস্য ডায়াবেটিসের যম

ডায়াবেটিসের আতঙ্ক এখন ঘরে ঘরে। জানেন কী ডায়াবিটিস কমাতে বা ছাড়াতে ডালের জুড়ি মেলা ভার। চিকিৎসকরা বলছেন, যেকোনো ধরণের ডাল বা দানাশস্য ডায়াবেটিসের যম।

চিকিৎসা বিজ্ঞানের আধুনিক গবেষণায় দেখা যাচ্ছে, ডায়াবেটিস প্রতিরোধে ম্যাজিকের মতো কাজ করে বিভিন্ন ধরনের ডাল ও বিভিন্ন দানা শস্য। মুসুর, ছোলা, মটর, কলাই জাতীয় ডাল খেলে ডায়াবেটিস হামলা চালাতে পারে না। ডালে থাকে প্রচুর পরিমানে ভিটামিন বি, ক্যালসিয়াম, পটাশিয়াম। প্রচুর পরিমাণে ফাইবার থাকে। তাই এটি লো গ্লাইসেমিক ইনডেক্স খাবার। ডাল খাওয়ার পর রক্তে শর্করার পরিমাণ বাড়ার গতি কমে যায়। সপ্তাহে এক দিন ডাল খেলেই ডায়াবেটিস হওয়ার আশঙ্কা ৩৩ % কমে যায়।

স্পেনে সাম্প্রতিক এক গবেষণায় দেখা গেছে, ভাত, মাখন, আলুসেদ্ধ, ডিম খেয়ে যে কার্ব্রোহাইড্রেট প্রোটিন পাওয়া যায়, এক বাটি মসুর ডাল খেলেই সেই চাহিদা মিটে যায়। ডায়াবেটিস রোগীদের খাদ্যতালিকায় তাই ডাল রাখতেই হবে। আর তা যদি কলাইয়ের ডাল হয়, তাহলে তো কথাই নেই। কারণ ডাক্তাররাই বলেন, কলাইয়ের ডাল ডায়াবেটিস প্রতিরোধের মহৌষধ। প্রচুর পরিমাণে ফাইবার সমৃদ্ধ এই কলাইয়ের ডাল।

তবে মনে রাখতে হবে, কিছু কিছু রোগে ডাল খাওয়া বারণ। তা-ই কিছুটা সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট