ভুবি ঝড়ে উড়ে গেল প্রীতির কিংস

ভুবি ঝড়ে উড়ে গেল প্রীতির কিংস

দুই ইনিংসের বিরতিতে ভিভিএস লক্ষ্মণ বলছিলেন, এই উইকেটে যা রান হয়েছে সেটাই অনেক। ম্যাচের শেষে তাঁর কথাটাই সত্যি হয়ে ফলে গেল। তবে আজ সানরাইজ়ার্স হায়দরাবাদের পেসার ভুবনেশষ্বর কুমার জ্বলে না উঠলে এটা সম্ভব হত না। তিনি এই ম্যাচে পাঁচটি উইকেট শিকার করেন। আজ টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের অধিনায়ক গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। কিন্তু, এ যেন এক অদ্ভুত উইকেট। নতুন বলও উইকেটে পড়ার পর ঠিকঠাক ব্যাটে আসছে না। তবে এই উইকেটেই যেভাবে ডেভিড ওয়ার্নার (৭০ অপরাজিত) ব্যাটিং করলেন, তার জন্য কোনও তারিফই যথেষ্ট নয়। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত নিজে দায়িত্ব নিয়ে গোটা দলের রান টেনে গেলেন।

আজ কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের বিরুদ্ধে ওয়ার্নার ছাড়া আর কেউ সেভাবে জ্বলে উঠতে পারলেন না। মাত্র ১৫ রান করে ফিরে গেলেন শিখর ধাওয়ান। একই রাস্তা ধরলেন মোজ়েস হেনরিকসও (৯)। তবে আজ দর্শকদের চূড়ান্ত হতাশ করলেন যুবরাজ সিং। তিনি রানের খাতা একেবারে খুলতেই পারলেন না। এরপর দলের রান খানিকটা এগিয়ে নিয়ে যান নমন ওঝা (৩৪)। ১৬.২ ওভারে হাফ সেঞ্চুরি করেন ওয়ার্নার। ৪৪ বলে অর্ধশতরান করেন তিনি। এরপর তেমন উল্লেখযোগ্য রান আর কেউ করেনি বললেই চলে। নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে সানরাইজ়ার্স হায়দরাবাদের রান দাঁড়ায় ১৫৯।

কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের সামনে জয়ের জন্য ১৬০ রানের লক্ষ্যমাত্রা ছিল। কিন্তু, এমন উইকেটে এই রান তাড়া করার জন্য যে ধৈর্যের প্রয়োজন হয়, তা দেখাতে পারেননি হাসিম আমলা। শূন্য রানেই তিনি প্যাভিলিয়নে ফিরে যান। ম্যাক্সওয়েলও (১০) অধিনায়কের দায়িত্ব সামলাতে পারেননি। দলের রান কিছুটা হলেও সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যান ইয়ন মরগ্যান এবং মনন ভোরা। কিন্তু, মরগ্যান ১৩ রানে আউট হয়ে ফিরে যান। এরপর একটা দিক ভোরা ধরে রাখলেও, অপরদিকে নিয়মিতভাবে উইকেট হারায় পঞ্জাব। মিলার (১), ঋদ্ধিমান (০), অক্সর প্যাটেল (৭) কিংবা মোহিত শর্মা (১০) কেউই মাথা তুলে দাঁড়াতে পারেনি।

শেষকালে এমন অবস্থা দাঁড়ায় যে ১২ বলে ১৬ রান করতে হবে। দলে তখনও টিকে রয়েছে একটাই আশার আলো। ৯৫ রানে ব্যাট করেছেন মনন ভোরা। কিন্তু, অপরদিকে কারিয়াপ্পা (১) আউট হয়ে যাওয়ায়, চাপ আরও খানিকটা বেড়ে যায়। ভুবনেশ্বর কুমারের বলে তিনি বোল্ড হয়ে ফিরে যান। ওই ওভারের তৃতীয় বলেই আর কোনও রান না করে ফিরে যান মনন ভোরাও। সঙ্গে সঙ্গেই আশার আলোটা দপ করে নিভে যায়। অবশেষে ৫ রানে জয় পায় হায়দরাবাদ।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট