নিষিদ্ধ হলো বালকের সঙ্গে যুবতীর বিয়ের সেই সিরিয়াল

নিষিদ্ধ হলো বালকের সঙ্গে যুবতীর বিয়ের সেই সিরিয়াল

 

অবশেষে সম্প্রচার বন্ধ করা হলো ভারতের সনি টিভির ‘পেহরেদার পিয়া কি’ সিরিয়ালটি। গেলো জুলাই মাস থেকে সিরিয়ালটি দেখানো হচ্ছিলো। খবর বিবিসি।

রাজপরিবারের সুন্দরী রাজকুমারী দিয়া। প্রথম দর্শনেই তার প্রেমে পড়েছে নয় বছরের বালক রতন কানওয়ার।

রাজকুমারী দিয়ার পিছু পিছু ঘুরে বেড়ায় রতন। তার ছবি তোলে। তাকে ‘তেলাপোকা’র কবল থেকে বাঁচায়। তরুণী রাজকুমারী তার নয় বছরের ‘প্রেমিকের’ গাল টিপে দেয়, চুমু খায়। প্রেমিকের বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে রসিকতা করে।

অবশেষে ওই রসিকতা একটা সময় সত্যিতে রূপ নেয় দিয়া ও রতনের বিয়ের মাধ্যমে।

পেহরেদার পিয়া কি (স্বামীর রক্ষী) কেন বন্ধ করে দেয়া হলো, তার কোনো ব্যাখ্যা দেয়নি চ্যানেলটি।

মুম্বাই ভিত্তিক একটি এনজিও ‘জয় হো ফাউন্ডেশন” অবশ্য শুরু থেকেই এটি নিষিদ্ধের দাবি তুলেছিল। তাদের দাবি শিশুদের জন্য মোটেই উপযোগী নয় নাটকটি। সোশ্যাল মিডিয়াতেও এটির সমালোচনা চলছিল।

অনলাইনে সিরিয়ালের বিরুদ্ধে এক আবেদনে সই করেন এক লাখের বেশি মানুষ। এরপর সম্প্রচার মন্ত্রী ভারতের ব্রডকাস্টিং কনটেন্ট কমপ্লেইন্ট কাউন্সিলের (বিসিসিসি) কাছে চিঠি লিখেন।

বিসিসিসি এরপর নির্দেশ দেয় টিভি সিরিয়ালটি যেন রাত সাড়ে আটটার পরিবর্তে রাত সাড়ে দশটার পরে দেখানো হয়। এবং টিভি সিরিয়ালটির শেষে ‘আমরা বাল্য বিয়ে সমর্থন করি না’ এমন একটি বার্তা প্রদর্শনেরও নির্দেশ দেয়।

তবুও সিরিয়ালটির সমালোচনা বাড়তেই থাকে। চাপের মুখে শেষ পর্যন্ত সনি টিভি অবশেষে এই সিরিয়ালটির প্রচার বন্ধের ঘোষণা দেয়।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট