৪০ বছর গ্যারেজে পড়ে থাকার পর ১৩ কোটিতে নিলাম হল দুষ্প্রাপ্য ফেরারি

৪০ বছর গ্যারেজে পড়ে থাকার পর ১৩ কোটিতে নিলাম হল দুষ্প্রাপ্য ফেরারি

প্রায় ৪০ বছর পড়ে থাকার ফলে ধুলো-ময়লা জমে গাড়িটি জৌলুস হারিয়েছে।

যাঁদের একটু আধটু গাড়ির শখ, ফেরারি-র নাম শুনলেই তাঁদের মনটাও কেমন যেন ‘ফেরারী’ হতে চায়। অথচ একটি দুষ্প্রাপ্য ফেরারি কি না গত প্রায় ৪০ বছর ধরে এক ভদ্রলোকের গ্যারেজ ‘পচছিল’!

দুষ্প্রাপ্য গাড়িটি ফেরারি ডেটোনা। ১৯৬৮ থেকে ১৯৭৩ সাল পর্যন্ত মোট ১২৮৪টি ডেটোনা তৈরি করেছিল ফেরারি। যার মধ্যে ৩০তম হল এই লাল রঙের ‘অভাগা’ গাড়িটি। জানলে আরও অবাক হবেন, ১২৮৪টি ডেটোনা-র মধ্যে একমাত্র এই গাড়িটির বডি অ্যালুমিনিয়াম অ্যালয় দিয়ে তৈরি।

ওডোমিটার (দূরত্ব মাপক) অনুযায়ী গাড়িটি মোট ৩৬ হাজার ৩৯০ কিলোমিটার চলেছে। ১৯৬৮-তে তৈরি হওয়া এই ফেরারি ডেটোনাটি ’৬৯-এ প্রথম বিক্রি হয়। এর পর একাধিকবার হাত বদল হয়ে অবশেষে জাপানের মাকোতো তাকাই-এর গ্যারেজে জমা হয়। গত জুন মাসে এই গ্যারেজ থেকেই উদ্ধার হয় গাড়িটি।

প্রায় ৪০ বছর পড়ে থাকার ফলে ধুলো-ময়লা জমে গাড়িটি জৌলুস হারিয়েছে অনেকটাই। সম্প্রতি ইতালিতে একটি নিলামে ২২ লক্ষ ডলারে বিক্রি হল গাড়িটি। ভারতীয় মূল্যে যা প্রায় ১৩ কোটি টাকা। জানা গিয়েছে, ফেরারি যে দামে এই ডেটোনা মডেলের গাড়িগুলিকে বিক্রি করে, এ গাড়িটি তার চেয়ে প্রায় চার গুন বেশি দামে নিলাম হল। তবে জাপানের মাকোতো তাকাই-এর গ্যারেজে কেন এই দুষ্প্রাপ্য গাড়িটি এত দিন অবহেলায় পড়েছিল, তা কিন্তু জানা যায়নি।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট