ময়মনসিংহে ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে জখম

ময়মনসিংহে ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে জখম

মুঠোফোন ছিনতাইকারীকে হাতেনাতে ধরার জেরে ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের কর্মী ইশরাক হোসেন রাফিকে কুপিয়ে জখম করেছে সন্ত্রাসীরা। এসময় সন্ত্রাসীরা চার রাউন্ড গুলি ছোড়ে। এ ঘটনায় ছয়জনকে আটক করেছে পুলিশ।

রবিবার বিকেলে নগরীর পিয়নপাড়া ও নতুন বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার নগরীর বাউন্ডারী রোড এলাকায় জেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক নওশেল আহমেদ অনির এক বন্ধুর ছোট ভাইয়ের মুঠোফোন ছিনতাই হয়। এরপর নাহার রোড মোড় থেকে আনন্দমোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক ইয়াসিন আরাফাত খোকনের অনুসারী তুষারের কাছ থেকে সেই মুঠোফোনটি উদ্ধার করা হয়।

এরপর বৃহস্পতিবার রাতেই নগরীর পিয়নপাড়া এলাকার শাহীনের বাসায় তুষারের নেতৃত্বে কয়েকজন অতর্কিত হামলা, ভাঙচুর ও তাণ্ডব চালায়।

এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক নওশেল আহমেদ অনি অভিযোগ করে বলেন, ওই ঘটনার জের ধরেই খোকন ও তার ভাই রিপনের নেতৃত্বে সন্ত্রাসীরা রবিবার বিকেলে ছাত্রলীগ কর্মী ইশরাক হোসেন রাফিকে কুপিয়ে আহত করে। এসময় তারা নগরীর পিয়নপাড়া রোডস্থ আমার বাসার সামনে ৪ রাউন্ড গুলিও ছোড়ে।

ডিবির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আশিকুর রহমান জানান, পূর্ব বিরোধের জের ধরে সংঘর্ষে রিপনসহ ছয়জনকে পুলিশী হেফাজতে রাখা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট