লঞ্চের আগেই আইফোন টেন নিয়ে মেয়ের ভিডিও পোস্ট, চাকরি গেল বাবার

লঞ্চের আগেই আইফোন টেন নিয়ে মেয়ের ভিডিও পোস্ট, চাকরি গেল বাবার

মার্কিন টেক জায়ান্ট অ্যাপলের আইফোন টেনের প্রিঅর্ডার শুরু হয়েছে ২৭ অক্টোবর থেকে।কিন্তু গ্রাহকের হাতে এখনও পৌঁছয়নি এই ফোন। এরই মধ্যে বেধেছে মহা গোল। মোবাইলটি লঞ্চ হওয়ার আগেই তার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দিয়েছিল অ্যাপলে কর্মরত এক ইঞ্জিনিয়ারের কন্যা। মেয়ের এই কীর্তিতে নাকি চাকরি খোয়াতে হয়েছে বাবাকে।

গত সপ্তাহে অ্যাপলের ক্যাফেটেরিয়ায় আইফোন টেন নিয়ে করা একটি ভিডিও ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়ে যায়। ভাইরাল হওয়া আইফোন টেনের হ্যান্ডস-অন ভিডিওটি এক অ্যাপল ইঞ্জিনিয়ারের মেয়ে ব্রুক পিটারসন তাঁর ইউটিউব চ্যানেলে পোস্ট করেছিলেন। অ্যাপলের তরফে অভিযোগ, ভিডিওতে পিটারসন আইফোন টেনের অ্যাপল পে এবং এক্সক্লুসিভ ইউজার ইন্টারফেস ফিচার দেখিয়েছিলেন। এর ফলে তিনি প্রতিষ্ঠানের নিয়ম লঙ্ঘন করেছিলেন বলে জানিয়েছে অ্যাপল। অ্যাপলের নিয়মানুযায়ী তাদের ক্যাম্পাসের ভিতরে ফটো তোলা নিষেধ। তা ছাড়া লঞ্চ না হওয়ায় তখনও তা কারও দেখারই কথা নয়।

ভিডিওটি ভাইরাল হতেই নিজের ভুল বুঝতে পারেন ব্রুক। এর পরই একটি ফলো আপ ভিডিও পোস্ট করেন তিনি। যাতে তিনি বলেন, “অ্যাপল বাবাকে ছাঁটাই করেছে। আপনি যখন অ্যাপলের জন্য কাজ করেন, তখন আপনি কতটা ভাল মানুষ তা বিষয় নয়। আপনি যদি একটি নিয়ম ভাঙেন সেটাই সহ্য করা হবে না।’’ তবে অ্যাপল এ বিষয়ে কোন মন্তব্য করেনি।এমনকী ওই কর্মীকে বরখাস্ত করা হয়েছে কি না তাও জানায়নি অ্যাপল।

দেখুন সেই ভিডিও

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট