ভারত-পাকিস্তানের জ্বালানি চাহিদা মেটাবে রাশিয়া

ভারত-পাকিস্তানের জ্বালানি চাহিদা মেটাবে রাশিয়া

ভারত ও পাকিস্তানের জ্বালানি চাহিদা মেটানোর লক্ষ্যে দেশ দুটিতে গ্যাস রপ্তানির জন্য ইরান থেকে পাইপলাইন তৈরি করতে চায় রাশিয়া। এজন্য পাকিস্তানের গোয়াদার বন্দর ব্যবহারের জন্য ইসলামাবাদের কাছে প্রস্তাব দিয়েছে মস্কো।

মার্কিন চাপ উপেক্ষা করেই রাশিয়া এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করার চিন্তা করছে। এর আগে, ইরান ও পাকিস্তানের মধ্যে যে গ্যাস পাইপলাইন তৈরির প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছিল তার বিরুদ্ধে আমেরিকা প্রবল চাপ সৃষ্টি করে। পাইপলাইন প্রকল্পে ইরানের অংশের কাজ শেষ হলেও চাপের মুখে পাকিস্তান তার অংশ এখনো শেষ করেনি।

রাশিয়ার নতুন প্রকল্প সম্পর্কে পাকিস্তানের ইংরেজি দৈনিক এক্সপ্রেস ট্রিবিউন জানিয়েছে, ইরানের ভেতরে রুশ কোম্পানিগুলোর হাতে বিপুল পরিমাণ গ্যাসের নিয়ন্ত্রণ রয়েছে। পাকিস্তানের গোয়াদার বন্দর ব্যবহার করে পাইপলাইনের সাহায্যে এই গ্যাস ভারতে রপ্তানি করার পরিকল্পনা নিয়েছে রাশিয়া। সেজন্য মস্কো পাকিস্তানকে এ পাইপলাইন প্রকল্পে যুক্ত হওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে। গোয়াদার বন্দর ব্যবহারের মাধ্যমে এ প্রকল্প বাস্তবায়নের সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের জন্য রাশিয়া প্রয়োজনীয় অর্থের যোগান দিতেও প্রস্তুত বলে পাকিস্তানের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। এজন্য সম্প্রতি রাশিয়ার একটি প্রতিনিধিদল পাকিস্তান সফর করেছে।

পাকিস্তানের এক কর্মকর্তা এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের কাছে বলেছেন, ইরান থেকে সমুদ্র পাইপলাইনের মাধ্যমে রুশ কোম্পানির গ্যাস কেনার ব্যাপারে ভারতও আগ্রহী কারণ, এর ফলে দেশটির জন্য জ্বালানি আমদানির নিরাপদ রুট খুলে যাবে।

পাক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে এক্সপ্রেস ট্রিবিউন আরো জানিয়েছে, এর আগে আইপি গ্যাস পাইপলাইনের অংশ ছিল ভারত। কিন্তু মার্কিন পীড়াপিড়ির মুখে ভারত সে প্রকল্প থেকে সরে যায়। এতে ইরান ও রাশিয়া দু দেশই ভারতের ওপর ক্ষুব্ধ হয়। কিন্তু এখন আবার নতুন করে সামুদ্রিক পাইপলাইনের মাধ্যমে গ্যাস আমদানির বিষয়ে দিল্লি আগ্রহ প্রকাশ করেছে। তবে এবারও আমেরিকা ভারতের ওপর চাপ সৃষ্টি করবে বলে বিশ্বাস করার যথেষ্ট কারণ রয়েছে এবং ভারত সে চাপ কীভাবে মোকাবেলা করে সেটাই বড় বিষয়।

রাশিয়ার কাছ থেকে গ্যাস আমদানির জন্য ভারত আগেই একটি সমঝোতা স্মারকে সই করেছে। সম্প্রতি পাকিস্তানও গ্যাস আমদানির বিষয়ে রাশিয়ার সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক সই করে।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট