গেইলের দানবীয় সেঞ্চুরিতে জ্যামাইকার দাপুটে জয়

গেইলের দানবীয় সেঞ্চুরিতে জ্যামাইকার দাপুটে জয়

মাত্র দুই ওভার বোলিং করে পুরোপুরি ব্যর্থ সাকিব আল হাসান। ব্যাটিংয়ের সুযোগই পাননি। কিন্তু তারপরও ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (সিপিএল) ম্যাচে ক্রিস গেইলের ‘দানবীয় ঝড়ে’ ঠিকই জয় তুলে নিয়েছে সাকিবের দল জ্যামাইকা তালাওয়াস। বাংলাদেশ সময় মঙ্গলবার সকালে অনুষ্ঠিত ম্যাচে গেইলের অপরাজিত সেঞ্চুরির সুবাদে শাহরুখ খানের মালিকানাধীন ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্সকে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে পরাজিত করেছে জ্যামাইকা।

পোর্ট অব স্পেনের কুইন্স পার্ক ওভাল মাঠে আগে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৯১ রানের পাহাড় গড়ে হাশিম আমলা ও ব্রেন্ডন ম্যাককালামের ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে গেইলের হার না মানা সেঞ্চুরির সুবাদে ৭ উইকেট ও ১০ বল হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে নোঙর করে জ্যামাইকা।

চলমান সিপিএলে এটি সাকিব-গেইলের জ্যামাইকার টানা দ্বিতীয় জয়। অন্যদিকে চার ম্যাচে ত্রিনবাগোর এটি তৃতীয় হার।

৫০ বলে সেঞ্চুরি পূর্ণ করা গেইল সব মিলিয়ে ৫৪ বলে ৬টি চার ও ১১টি ছক্কার সাহায্যে ১০৮ রানের হার না মানা ইনিংস খেলেন। সিপিএলে এটি তার তৃতীয় এবং প্রতিযোগিতামূলক টি-টুয়েন্টিতে ১৮তম সেঞ্চুরি।

ত্রিনবাগোর হয়ে সুনিল নারিন ৪ ওভারের স্পেলে মাত্র ৯ রান দিয়ে এক উইকেট নেন। ডোয়াইন ব্রাভো নেন ৩৫ রানে একটি উইকেট।

জয়ের জন্য ১৯২ রানের লক্ষ্য নিয়ে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই উইকেট হারায় জ্যামাইকা। দলীয় ২৯ রানের মাথায় কেভন কুপারের সরাসরি থ্রোতে রানআউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন ওপেনার ওয়ালটন। এরপর দারুণ খেলতে থাকা কুমার সাঙ্গাকারা (২০) দলীয় ৬৯ রানের মাথায় ফিরে গেলে চাপের মুখে পড়ে সাকিবের দল।

তবে অন্যপ্রান্তে রীতিমতো ঝড় বইয়ে দেন গেইল। একের পর এক চার-ছক্কার বন্যা বইয়ে দিয়ে প্রতিপক্ষের কাছ থেকে ম্যাচ বের করে আনেন ক্যারিবিয়ান দানব। তৃতীয় উইকেটে আন্দ্রে রাসেলের সঙ্গে মাত্র ৩৮ বলে ১০৮ রানের দানবীয় জুটি গড়েন গেইল; জুটিতে রাসেলের অবদান ছিল মাত্র ২৪ রান। এই দুর্দান্ত জুটির কল্যাণেই জয়ের বন্দরের কাছাকাছি চলে আসে জ্যামাইকা।

দলীয় ১৬৯ রানের মাথায় রাসেল (২৪) ফিরে গেলে রবম্যান পাওয়েলকে নিয়ে ৯ বলে ১৫ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি গড়ে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছাড়েন গেইল।

এর আগে আমলার ৫২ বলে ৭৪ ও কলিন মুনরোর ৩৯ বলে ৫৫ রানের দারুণ ইনিংসের ওপর ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৯১ রানের পাহাড় গড়ে ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। এছাড়া দলটির হয়ে ম্যাককালাম ১৮ বলে সমান তিনটি করে চার-ছক্কায় ৩৫ রানের ‘ঝড়ো’ ইনিংস খেলেন।

জ্যামাইকার হয়ে ২ ওভারে ২৬ রান দেয়ার পর সাকিবকে আর বোলিং আক্রমণে আনেননি দলটির অধিনায়ক গেইল। জ্যামাইকার হয়ে ইমাদ ওয়াসিম, ডেল স্টেইন ও ক্যাসরিক উইলিয়ামস একটি করে উইকেট নেন।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ সময় আগামী শুক্রবার ভোর পাঁচটায় নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে গায়ানা অ্যামাজোনের বিপক্ষে লড়বে সাকিবের জ্যামাইকা। তিনদিন পর একই প্রতিপক্ষের বিপক্ষে খেলবে ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স।

সম্পর্কিত সংবাদ
ডেস্ক রিপোর্ট