মিতু হত্যা মামলার ২ আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

মিতু হত্যা মামলার ২ আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

পুলিশ কর্মকর্তা বাবুল আক্তারের স্ত্রী মিতু হত্যা মামলায় অন্যতম সন্দেহভাজন রাশেদ ও নুরুন্নবী গুলিতে নিহত হয়েছে। পুলিশের দাবি বন্দুকযুদ্ধ। এসময় ৩ পুলিশ সদস্যও আহত হয়েছে বলে দাবি পুলিশের।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান জানান, এ দুজনই তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী। চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ার রানীর হাটে তারা অবস্থান করছে এমন খবরে মঙ্গলবার ভোররাতে অভিযান চালায় পুলিশ। এ সময় সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়লে পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়ে। পরে ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় দু’জনকে উদ্ধার করা হয়। একই সাথে ২টি পিস্তল, একটি এলজি, ৫ রাউন্ড কার্তুজ এবং ২টি বিরিচ উদ্ধার করা হয়।

এর আগে মিতু হত্যা মামলায় গ্রেফতার হওয়া ওয়াসিম ও আনোয়ার আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। সে সময় হত্যাকাণ্ডে জড়িত হিসেবে রাশেদ ও নবীর নাম জানায় তারা। এরপর থেকে পুলিশ তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা করছে। তবে দুজনেরই পরিবারের দাবি, তাদের আগেই আটক করেছিলো।

গত ৫ জুন, চট্টগ্রামের জিইসি মোড়ে গুলি ও ছুরিকাঘাতে মিতুকে হত্যা করা হয়। সে সময় নবী মিতুকে উপর্যপুরী ছুরিকাঘাত করেছিলো বলে জানায় গ্রেফতারকৃতরা। এছাড়া রাশেদ খুনিদের বহনকারী মোটর সাইকেলটি কিনে আনার পাশাপাশি হত্যাকাণ্ডের সময় আশপাশে ছিলো বলেও জানায় তারা।

সম্পর্কিত সংবাদ
নিজস্ব প্রতিবেদক